প্রোগ্রাম তৈরির সময় বিভিন্ন কারণে প্রোগ্রামে ভুল হতে পারে। প্রোগ্রামের ভুলকে বাগ (Bug) বলে। আর প্রোগ্রামের ভুল-ত্রুটি খুঁজে বের করে তা দূর করাকে ডিবাগিং (Debugging) বলে। এর আক্ষরিক অর্থ পোকা বাছা। ১৯৪৫ সালে মার্ক-১ কম্পিউটারের ভেতরে একটি মথপোকা ঢুকায় কম্পিউটারটি বন্ধ হয়ে যায়। তখন থেকে ডিবাগিং কথাটির উৎপত্তি। সব ভুল-ত্রুটি দূর না হওয়া পর্যন্ত কোন প্রোগ্রামই ব্যবহার করা যায় না। প্রোগ্রামে তিন ধরনের ভুল হতে পারে। যেমনঃ

  1. ডেটা ভুল (Data Error)
  2. যুক্তিগত ভুল (Logical Error)
  3. সিনট্যাক্স ভুল (Syntex Error)

১. ডেটা ভুল (Data Error) : কম্পিউটারে ভুল ডেটা দিলে তাকে ডেটা ভুল বলে। যেমনঃ 30 এর জায়গায় ভুল করে 03 টাইপ করা হলে এটি ডেটা ভুল হয়।

২. যুক্তিগত ভুল (Logical Error) : প্রোগ্রামে যুক্তির ভুলগুলোকে যুক্তিগত ভুল বলে। যেমনঃ M > N এর জায়গায় M < N বা T = A + B এর জায়গায় T = A – B লেখলে যুক্তিগত ভুল হয়।

৩. সিনট্যাক্স ভুল (Syntex Error) : সিনট্যাক্স ভুল হলো যে ভাষায় প্রোগ্রাম লেখা হয় সেই ভাষার ব্যাকরণগত ভুল। এ ভুল বিভিন্ন ধরনের হতে পারে। যেমনঃ বানান ভুল INPUT এর জায়াগায় INPOT, PRINT এর জায়গায় PIRNT ইত্যাদি।

এখানে যা শিখলাম–

বাগ কাকে বলে?; ডিবাগিং কাকে বলে?; ডিবাগিং এর আক্ষরিক অর্থ কি?; প্রোগ্রামে কত ধরনের ভুল হতে পারে?; ডেটা ভুল কাকে বলে?; যুক্তিগত ভুল কাকে বলে?; সিনট্যাক্স ভুল কাকে বলে?;

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x