পড়াশোনা
1 min read

রেটিনা কাকে বলে? পেঁয়াজ ও গোল আলু এর ব্যবহারিক দিক লিখ।

চক্ষু লেন্সের পেছনে অবস্থিত অক্ষিগোলকের ভিতরের পৃষ্ঠের গোলাপী রঙের ঈষদচ্ছ আলোক সংবেদন আবরণকে রেটিনা বলে। এটি রড ও কোণ নামে কতগুলো স্নায়ুতন্ত্র দ্বারা তৈরি। এই তন্তুগুলো চক্ষু স্নায়ুর সাথে সংযুক্ত থাকে। রেটিনার উপর আলো পড়লে তা ঐ স্নায়ুতন্তুতে এক প্রকার উত্তেজনা সৃষ্টি করে ফলে মস্তিষ্কে দর্শনের অনুভূতি জাগে।

পেঁয়াজ ও গোল আলু এর ব্যবহারিক দিক।
পেঁয়াজ ও গোল আলু এর ব্যবহারিক দিকগুলো আলোচনা করা হলো-

পেঁয়াজ এর ব্যবহারিক দিক:
i. পেঁয়াজের দেশীয় ও আন্তর্জাতিক বাজারে অনেক চাহিদা রয়েছে।
ii. উৎপাদন খরচের তুলনায় পেঁয়াজে লাভ বেশি।
iii. পেঁয়াজের চাষ ও প্রক্রিয়াজাতকরণ অনেক মানুষের জীবিকার উৎস।
iv. নানা প্রকার ঔষধ তৈরিতে পেঁয়াজ ব্যবহৃত হয়।

গোল আলু এর ব্যবহারিক দিক:
i. গোল আলু এক ধরনের বহুল ব্যবহৃত সবজি যা উৎপাদনে খরচ যথেষ্ট কম হয়।
ii. এটি শিশু-কিশোর থেকে শুরু করে যুবক-বৃদ্ধ সকল নারী-পুরুষ খাদ্য হিসেবে গ্রহণ করতে পারে, যা খাদ্যে শর্করার ঘাটতি পূরণ করে।
iii. গোল আলু ভাতের পরিবর্তে খাদ্য হিসেবে ব্যবহৃত হয়, যা ভাতের পরিপূরক হিসেবে কাজ করতে পারে।
iv. বাজারে এর তুলনামূলকভাবে দাম বেশি এবং এর মাধ্যমে অল্প পরিশ্রম ও অল্প খরচে সহজেই লাভবান হওয়া যায়।
v. রপ্তানিযোগ্য পণ্য হওয়ায় বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের যথেষ্ট সুযোগ রয়েছে।

Rate this post