রাষ্ট্রবিজ্ঞান
1 min read

যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারের বৈশিষ্ট্যগুলো কী কী? 

যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারের বৈশিষ্ট্য সমূহ

যুক্তরাষ্ট্রীয় শাসনব্যবস্থা হচ্ছে সর্বাধুনিক সরকার ব্যবস্থা। ক্ষমতা বণ্টনের ভিত্তিতে সরকার দুই ধরনের হয়ে থাকে; যথা— এককেন্দ্রিক সরকার এবং যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকার। কতিপয় রাষ্ট্রের মিলনের ফলে যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকার ব্যবস্থার সৃষ্টি হয়।

→ যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারের প্রধান বৈশিষ্ট্যসমূহ : নিচে যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারের প্রধান প্রধান বৈশিষ্ট্যগুলো আলোচনা করা হলো :

১. সংবিধানের প্রাধান্য : যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারে সংবিধানের প্রাধান্য স্বীকৃত। কেন্দ্রীয় ও প্রাদেশিক সরকারগুলোকে সংবিধান ক্ষমতা ও কার্যাবলি ভাগ করে দেয়।

২. দুই ধরনের সরকার : যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারে কেন্দ্র ও প্রাদেশিক এই দুই ধরনের সরকার থাকে। প্রত্যেক সরকারই স্ব- স্ব এলাকায় স্বাধীন।

৩. দ্বিকক্ষ বিশিষ্ট আইনসভা : যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকার ব্যবস্থায় দ্বিকক্ষ বিশিষ্ট আইনসভা থাকে। নিম্নকক্ষ সমগ্র জাতির প্রতিনিধিত্ব এবং উচ্চকক্ষ সাধারণত প্রদেশগুলোর প্রতিনিধিত্ব করে।

৪. লিখিত সংবিধান : যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারের সংবিধান সাধারণত লিখিত হয়। কেননা কেন্দ্র ও প্রদেশের ক্ষমতা সাংবিধানিকভাবে লিপিবদ্ধ হলে কেউ কারো উপর হস্তক্ষেপ করতে পারবে না।

৫. ক্ষমতার বণ্টন : যুক্তরাষ্ট্রীয় শাসনব্যবস্থায় সংবিধান কর্তৃক কেন্দ্রীয় ও প্রাদেশিক সরকারের মধ্যে ক্ষমতা বণ্টন করে দেওয়া হয়। দেশরক্ষা, মুদ্রা ও বৈদেশিক সম্পর্ক প্রভৃতি বিষয় কেন্দ্রের হাতে থাকে।

৬. দুষ্পরিবর্তনীয় সংবিধান : সংবিধান প্রদত্ত ক্ষমতা যাতে সংরক্ষিত থাকে সেজন্য সংবিধান দুষ্পরিবর্তনীয় হয়। যার ফলে কেন্দ্রীয় যা অঙ্গরাজ্যগুলো আলাদাভাবে সংবিধান সংশোধন করতে পারে না। সংবিধান সংশোধনে উভয় কক্ষের সম্মতির প্রয়োজন হয়।

৭. দ্বি-নাগরিকত্ব : যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকার ব্যবস্থায় দুই ধরনের নাগরিকত্ব প্রদান করা হয়। যুক্তরাষ্ট্রের সকল নাগরিক একাধারে সমগ্র দেশের নাগরিক এবং নিজ অঙ্গরাজ্যের নাগরিক।

৮. যুক্তরাষ্ট্রীয় মনোভাব : যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারে দুই ধরনের বিপরীতমুখী প্রবণতা দেখা যায়। একটি হলো কেন্দ্রবিমুখী, অপরটি কেন্দ্রমুখী। এই ব্যবস্থায় প্রদেশগুলো জাতীয় ঐক্য চাইবে কিন্তু এক হয়ে মিশে যেতে চাইবে না প্রদেশগুলো স্ব-স্ব স্বায়ত্তশাসন ভোগ করবে।

উপসংহার : পরিশেষে বলা যায় যে, যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকার নিঃসন্দেহে একটি উত্তম শাসনব্যবস্থা। এ ব্যবস্থায় কেন্দ্রীয় সরকার জাতীয় স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয় এবং প্রাদেশিক সরকার স্থানীয় বিষয়গুলো দেখাশুনা করে বলে যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকার ব্যবস্থায় দেশের সার্বিক উন্নতি লক্ষ করা যায় ।

 

শেষ কথা:
আশা করি আপনাদের এই আর্টিকেলটি পছন্দ হয়েছে। আমি সর্বদা চেষ্টা করি যেন আপনারা সঠিক তথ্যটি খুজে পান। যদি আপনাদের এই “যুক্তরাষ্ট্রীয় সরকারের বৈশিষ্ট্যগুলো কী কী? ” আর্টিকেলটি পছন্দ হয়ে থাকলে, অবশ্যই ৫ স্টার রেটিং দিবেন।

5/5 - (32 votes)