Recipe

আইসক্রিম (Ice cream) এর উত্থান,উপাদান এবং রেসিপি

1 min read

আইসক্রিম (Ice cream)

আইসক্রিম(Ice cream) সাধারন কথ্য বাংলায় যা কুল্ফি নামেও অধিক পরিচিত।

আইসক্রিম(Ice cream)  বা কুল্ফি মূলত বরফ,চিনি ও দুধ এর সমন্বয়ে তৈরী এক ধরনের ডেজার্ট।

এই আইসক্রিম(Ice cream)  কে আরো বেশি আকর্ষনীয় ও লোভনীয় করে তুলতে এতে ব্যবহার করা হয় আরো বিভিন্ন ধরনের ফ্লেভার।

১৫৩৩ সালে আইসক্রিম(Ice cream)  ইতালি থেকে ফ্রান্সে আসে এবং এরপর ইংল্যান্ড, আমেরিকা সহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে আইসক্রিম(Ice cream) ছড়িয়ে পড়ে। ১৯০০ সালের দিকে এর বানিজ্যিক উৎপাদন শুরু হয়।

উপাদানঃ

এর প্রধান উপাদান দুধ, চিনি,ভুট্রার সিরাপ,পানি, সুস্বাদু ও সুগন্ধকারী বস্তু

যেমনঃ চকোলেট, ভ্যানিলা, বাদাম, ফলের রস ইত্যাদি যোগ করা হয়৷

হিমায়িত করার সময় যে বাতাস একীভুত হয় সেই বায়ুও আইস্ক্রিমের  গুরুত্বপূর্ণ উপাদান।

আইসক্রিম(Ice cream)  বিভিন্ন ধরনের হতে পারে যেমনঃ

১. মালাই কুলফি আইসক্রিম

২. বাদাম মালাই কুলফি আইসক্রিম  

৩. চকোলেট আইসক্রিম 

৪. স্ট্রবেরী আইসক্রিম 

৫. ম্যান্গো আইসক্রিম 

৬. তালের আইসক্রিম

৭. কফি আইসক্রিম

প্রস্তুত প্রনালী

বাদাম মালাই কুলফি:

উপকরনঃ

গরুর দুধ ৫০০ মি.লি., গুড়া দুধ ৩ টেবিল চামচ, কন্ডেন্স মিল্ক ৩ টেবিল চামচ, চিনি ৩ টেবিল চামচ, কর্নফ্লাওয়ার ১ টেবিল চামচ, কাজুবাদাম ও কাঠবাদাম গুড়া ৩ টেবিল চামচ, কাজুবাদাম কাঠবাদাম কুচি ২ টেবিল চামচ, স্ট্রবেরী এসেন্স ৩ ফোটা।

প্রনালীঃ

প্রথমে ৫০০ মি.লি দুধ ঘন করে ৩০০ মি.লি করতে  হবে এবং দুধে যাতে সর না পড়ে তার জন্য ভালোভাবে নেড়ে ঘন করতে হবে এবং পরে গুড়ো দুধ মিশাতে হবে।

এবার একে একে চিনি কন্ডেন্স মিল্ক দিয়ে একে একে মিশাতে হবে।

২-৩ মিনিট পর কাজু ও কাঠবাদাম গুড়ো মিশাতে হবে এবং কন্ডেন্স মিল্ক মিশিয়ে ভালোভাবে নাড়তে হবে যাতে মিশ্রনে কোনো প্রকার দানা না থাকে।

দুধ ঘন হয়ে আসলে তাতে বাদাম কুচি, স্ট্রবেরী এসেন্স দিয়ে চুলা বন্ধ করে দিতে হবে।

মিশ্রনটি ঠান্ডা হয়ে যাওয়ার পর কুল্ফি মোল্ড, বায়ুরোধী টিফিন বক্সে ঠেলে তাতে বাদাম কুচি ছড়িয়ে আট নয় ঘন্টা ডিপ ফ্রিজে রেখে পরিবেশন করা যেতে  পারে।

তালের আইসক্রিম-(Ice cream) :

উপকরণঃ

তালের ক্বাথ আধা কাপ, ডাবল ক্রিম ১ কাপ, কন্ডেন্স মিল্ক আধা কাপ, দুধ ১ কাপ, গ্রেট করা চকোলেট,  মিক্সড ফ্রুটস জেলি।

প্রনালীঃ

প্রথমে হ্যান্ড ব্লেন্ডার দিয়ে ক্রিম খুব ভালোভাবে ফেটিয়ে নিতে হবে৷ এবার বাকি সব উপকরণ মিশ্রনটি তে ঢেলে ভালোভাবে আবার ব্ল্যান্ড করতে হবে।

এবার মিশ্রনটিকে প্লাস্টিকের বক্সে ঢেলে ঘন্টা তিনেক ডিপ ফ্রিজে রাখতে হবে।

তারপর আইসক্রিম ফ্রিজ থেকে বের করে আবার হ্যান্ড ব্ল্যান্ডার দিয়ে ব্ল্যান্ড করতে হবে ততক্ষন যতক্ষন না মসৃন হয়।

দ্বিতীয় বার যখন আইসক্রিম  টি কে ব্ল্যান্ড করা হবে তখন খুব ভালো করে ব্ল্যান্ড করতে হবে যেনো আইসক্রিম বরফ শক্ত না হয়ে যায়।

মিশ্রন টি কে আবার ৩-৪ ঘন্টা ফ্রিজে রেখে জমিয়ে নিতে হবে।

স্কুপে করে আইসক্রিম(Ice cream)  নিয়ে প্লেটে বা বাটিতে রেখে চকোলেট এবং মিক্সড ফ্রুটস দিয়ে ভালো করে সাজিয়ে পরিবেশন করা যেতে পারে। কেননা সুন্দর করে পরিবেশন করলে তার স্বাদ আরো বহুগুন বেড়ে যায়।

এই ভাবে খুব সহজে আইসক্রিম নিজেরাই ঘরে বানিয়ে সুন্দর করে পরিবেশন করে তা উপভোগ করা যেতে পারে৷

5/5 - (23 votes)
Mithu Khan

I am a blogger and educator with a passion for sharing knowledge and insights with others. I am currently studying for my honors degree in mathematics at Govt. Edward College, Pabna.

x