Class 7 - বাংলা
1 min read

কাবুলিওয়ালা : সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর (PDF)

কাবুলিওয়ালা গল্পে আফগানিস্তান থেকে ফেরি করতে এসে কাবুলিওয়ালা রহমত ছোট্ট মেয়ে মিনির ক্ষুদ্র হৃদয় জয় করে নেয়।

কাবুলিওয়ালা গল্পের সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর | ভিন্ন ভিন্ন পরিবেশে জন্ম নিলেও সারা পৃথিবীর মানুষের সুখ-দুঃখ, আনন্দ-বেদনা, স্নেহ-ভালোবাসার স্বরূপ অভিন্ন। “কাবুলিওয়ালা” গল্পে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর একজন বাঙালি লেখক ও তাঁর সাথে ভিনদেশের রুক্ষ পরিবেশে গড়ে ওঠা একজন কাবুলিওয়ালার স্নেহশীল মনের ঐক্যের পরিচয় দিয়েছেন।

সন্তানের প্রতি স্নেহ-মায়া-মমতার ক্ষেত্রে পাহাড়-মরু অঞ্চলের কাবুলিওয়ালার সাথে আমাদের এ সমতলভূমির একজন বাবার কোনো পার্থক্য নাই। আলোচ্য গল্পে আফগানিস্তান থেকে ফেরি করতে এসে কাবুলিওয়ালা রহমত ছোট্ট মেয়ে মিনির ক্ষুদ্র হৃদয় জয় করে নেয়।

নিজের দেশে মিনির সমবয়সী তারও একটা মেয়ে আছে। মিনির মধ্য দিয়ে সে তার নিজের মেয়েকে ভালবাসার সুখ অনুভব করে। লেখক কাবুলিওয়ালার মাধ্যমে বিশ্বের সকল পিতৃহৃদয়ের চিরন্তন রূপকে ফুটিয়ে তুলেছেন।


কাবুলিওয়ালা গল্পের সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর

সৃজনশীল প্রশ্ন ১ : ঈদের কেনাকাটা শেষে বাড়ি ফেরার পথে কাব্য তার বাবা ছিনতাইকারীর কবলে পড়ে। ছিনতাইকারীর হাত থেকে ছেলেকে বাঁচাতে গিয়ে গুরুতর আহত হন কাব্যের বাবা। হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও ডাক্তার কাব্যের বাবাকে বাঁচাতে পারেন না।

ক. লেখকের প্রতিবেশী রহমতের নিকট কোন চাদরের জন্য ধারিত ছিলেন?
খ. লেখকের চোখ ছলছল করে উঠল কেন?
গ. উদ্দীপকের কাব্যের বাবার সাথে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের কাবুলিওয়ালার সাদৃশ্য কোন দিক থেকে? ব্যাখ্যা করো।
ঘ. “উদ্দীপকটি ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের মূলসূরকেই ধারণ করে” -মন্তব্যটি বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ২ : রাতুল বাবার একমাত্র ছেলে। বিদেশে থাকে। ছেলেকে বিদেশে পাঠিয়ে একমুহূর্তের জন্যও রাতুলের বাবা তাকে ভুলে থাকতে পারে না। প্রতিদিন ফোন করে রাতুলের খোঁজখবর নেন। দেশ থেকে ছেলের জন্য অনেক কিছু পাঠান।

ক. রহমত প্রতিবছর কোথায় মেওয়া বেচতে আসে?
খ. লেখক রহমতকে নিজের দেশে ফিরে যেতে বললেন কেনো?
গ. উদ্দিপকের সাথে “কাবুলিওয়ালা” গল্পের কোন ভাবের সাদৃশ্য রয়েছে? ব্যাখ্যা করো।
ঘ. ‘মিনির বাবা ও কাবুলিওয়ালার সন্তানবাৎসল্যই উদ্দীপকে বিদ্যমান।’ -বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৩ :
যেখানেতে দেখি যাহা
মায়ের মতন আহা
একটি কথায় এত সুধা মেশা নাই
মায়ের মতন এতো
আদর সোহাগ সে তো
আর কোনখানে কেহ পাইবে ভাই।

ক. ‘দুহিতা’ শব্দের অর্থ কি?
খ. রহমত লেখকের প্রতিবেশীকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে কেন?
গ. উদ্দীপকের সাথে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের অমিল তুলে ধরো।
ঘ. ‘মিল না থাকলেও উদ্দীপকটি ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের মতো চিরন্তন সত্যকেই উন্মোচিত করেছে।’ -উক্তিটি মূল্যায়ন করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৪ : ঝুলি-ঝোলানো কোনো ফেরিওয়ালাকে দেখলেই ভয়ে নীল হয়ে যায় নিনিত। তার ধারণা, ছোটো ছেলেমেয়েদের মাথা কেটে তারা ঝুলিতে ভরে রাখে।

ক. কাবুলিওয়ালার মাথায় কি ছিলো?
খ. ‘অমনি সে ঊর্ধ্বশ্বাসে অন্তঃপুরে দৌড় দিল’ -কেন?
গ. উদ্দীপকের সাথে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের সাদৃশ্য কোথায়? আলোচনা করো।
ঘ. স্নেহ-ভালোবাসা মানুষে মানুষে দূরত্ব দূর করতে পারে -উদ্দীপক ও ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের আলোকে উক্তিটি বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৫ : বাংলা সাহিত্যের একটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র ঈশ্বরী পটানী। একবার একজন দেবীকে তিনি নদী পার করে দেন। দেবী খুশি হয়ে বর দিতে চাইলে তিনি নিজের জন্য কিছুই চান না। শুধু প্রার্থনা জানান, ‘আমার সন্তান যেন থাকে দুধে ভাতে’। তার এই উক্তির মাধ্যমে পিতৃত্বের সার্বজনীন ও চিরন্তন রূপটি উন্মোচিত হয়েছে।

ক. কে কাহাকে কৌয়া বলেছিল?
খ. কে অত্যন্ত শঙ্কিত স্বভাবের মহিলা এবং কেন? বুঝিয়ে লেখো।
গ. ঈশ্বরী পটানীর মাধ্যমে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের কোন বিশেষ দিকটি উন্মোচিত হয়েছে তা আলোচনা করো।
ঘ. “উদ্দীপকে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের মূল সুরটিকে খুঁজে পেলেও গল্পে বর্ণিত নানামুখী ঘটনা সেখানে অনুপস্থিত” -উক্তিটি বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৬ : সৌরভ সাহেবের ছেলে পরাগের সাথে পাশের বাড়ির অনুর খুব ভাব। অনুর বাবা নেই। মা সকালে কাজে বেরিয়ে রাতে ফিরে। নিঃসঙ্গ অনু তাই পরাগের সাথে খেলা করে। পরাগের পরিক্ষা চলায় সৌরভ সাহেব প্রথমে অনুকে ফিরিয়ে দিতে চাইচিলেন। কিন্তু পিতৃস্নেহ বঞ্চিত মেয়েটির কষ্ট অনুভব করে তিনি অনুকে পরাগের সাথে খেলতে পাঠিয়ে দিলেন।

ক. কে এক দণ্ড কথা না বলে থাকতে পারে না?
খ. গল্পকথক বধূবেশী মিনিকে অন্তঃপুর থেকে ডাকিয়ে আনলেন কেন?
গ. উদ্দীপকের সৌরভ সাহেবের প্রাথমিক দ্বিধা ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের কোন প্রসঙ্গকে মনে করিয়ে দেয়? ব্যাখ্যা করো।
ঘ. উদ্দীপক ও ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্প উভয়ক্ষেত্রেই পিতৃস্নেহের গভীরতার প্রকাশ ঘটেছে -মন্তব্যটির যথার্থতা বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৭ : জাবেদ গ্রামের এক সাধারণ কৃষক। পাশের বাড়ির আজিজ মিয়ার সাথে জমি নিয়ে তার বিরোধ বাধে। এ নিয়ে একদিন তো শুধু ঝগড়াই নয় শুরু হয় তুমুল মারামারি। এক পর্যায়ে জাবেদ ঘর থেকে দা নিয়ে এসে আজিজ মিয়ের হাতে কোপ বসিয়ে দেই। গ্রামের লোকজন পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ এসে জাবেদকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়।

ক. ‘নভেল’ শব্দের অর্থ কি?
খ. রহমত মাটিতে বসে পড়ে কেন?
গ. উদ্দীপকের সাথে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের কোন বিষয়ের মিল রয়েছে? আলোচনা করো।
ঘ. “অপরাধ করলে তার শাস্তি অনিবার্য।” -উক্তিটি উদ্দীপক ও ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের ক্ষেত্রে সমানভাবে প্রযোজ্য -বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৮ : রাজু মিয়ার বাড়ি রাজশাহী জেলায়। খুলনায় তিনি সাইকেল করে নানারকম জিনিস ফেরি করে বেড়ান। রিতু নামের ছয় বছরের একটি মেয়ে মাঝে মাঝে কম দামে দু-একটি প্লাস্টিকের খেলনা ও চকলেট কিনেন। এক সময় রিতুর সাথে রাজু মিয়ার বন্ধুত্ব গড়ে উঠে। রিতুর মা তাকে টাকা দিতে চাইলে তিনি নেন না। তিনি বলেন, ওকে দেখলে তার মেয়ের

কথা মনে পড়ে।
ক. মিনি কি খেলা খেলতে শুরু করেছিলো?
খ. ‘দেখিয়ে আমার চোখ ছলছল করিয়া আসিল’। -কেনো? বুঝিয়ে লেখো।
গ. উদ্দিপকের রিতু চরিত্রটির সাথে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের কোন চরিত্রের মিল রয়েছে? ব্যাখ্যা করো।
ঘ. ‘সন্তানের সঙ্গে পিতা-মাতার সম্পর্ক অবিচ্ছেদ্য থাকে’। -উদ্দীপক এবং ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের আলোকে বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ৯ : আমির হোসেন রিকশা চালায়। প্রতিদিন বাড়িতে ফিরে একমাত্র মেয়ে ময়নার সাথে সে খুব গল্প করে। সারাদিন বাবা কোন কোন এলাকায় গেলো, কি খেল, কোন কোন মজার ঘটনা ঘটেছে কিনা এসব জানতে চায়। নিজেও সারাদিন যা করেছে তা বলতে থাকে। আমির হোসেন সারাদিন পরিশ্রম করে মেয়ের সুন্দর একটি ভবিষ্যৎ তৈরি করার জন্য।

ক. মিনির মা কেমন স্বভাবের মানুষ?
খ. মিনি কাবলিওয়ালাকে ভয় পেত কেন?
গ. উদ্দীপকের ময়না চরিত্রে ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের মিনি চরিত্রের কোন দিকটি ফুটে উঠেছে? ব্যাখ্যা করো।
ঘ. সন্তানের মঙ্গল চিন্তায় সব পিতার সহজাত আকাঙ্ক্ষা -মন্তব্যটি উদ্দীপক ও ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের আলোকে বিশ্লেষণ করো।

সৃজনশীল প্রশ্ন ১০ : ছোট মেয়ে নিশিকে নিয়ে জামান সাহেব একদিন দোকানে কেনাকাটা করতে গেলে দোকানদারের সাথে অল্পক্ষণের মধ্যে নিশির খুব ভাব জমে যায়। জামান সাহেব টাকা দিতে গেলে দোকানদার জসিম বলে -টাকা দিতে হবে না ভাই। ওকে দেখে আমার গ্রামে থাকা মেয়েটার কথা খুব মনে পড়ছে।

ক. কাগজের ওপর কিসের ছাপ ছিলো?
খ. ‘দেখিয়া আমার চোখ ছলছল করিয়া আসিল’ -কেন?
গ. দোকানদারের শেষ কথাটি ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের কোন দিকটিকে মনে করিয়ে দেয়? আলোচনা করো।
ঘ. “সন্তানের কথা পিতার মনে সর্বদা জাগরূক থাক” -উদ্দীপক ও ‘কাবুলিওয়ালা’ গল্পের আলোকে উক্তিটি বিশ্লেষণ করো।

 


ANSWER SHEET

উপরে ডাউনলোড বাটনে ক্লিক করে কাবুলিওয়ালা গল্পের সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর ডাউনলোড করে নাও।

 

Rate this post