আমরা সকলে বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে জেনে থাকি কিন্তু আমাদের জানার কোনো শেষ নেই। বাংলা থেকে ইংরেজি অনুবাদ | Bangla to English Translation বিষয়টি আমাদের সবার জন্য জানা খুব গুরুত্বপূর্ণ। nagorikvoice.com ওয়েবসাইটে আপনি নানাবিধ প্রশ্নের উক্তর খুঁজে পাবেন, যা  জেনে অনেক উপকৃত হতে পারেন। আপনাদের সুবিধার কথা চিন্তা করে বিস্তারিত তথ্য এখানে তুলে ধরেছি। আশা করছি এটি আপনাকে খুব ভালোভাবে সাহায্য করবে।

বাংলা থেকে ইংরেজি (Bangla to English)  অথবা ইংরেজি থেকে বাংলা (English to Bangla)  কিভাবে করবেন। আপনি লিখবেন বাংলা অথচ আপনার বিদেশি বন্ধুর কাছে সেটা তার ভাষায় পৌঁছে যাবে!!! অবাক লাগলেও সম্ভব।

আমাদের প্রধান ভাষা বাংলা এবং আমরা অন্য ভাষায় তেমন যোগাযোগ করি না। যার ফলশ্রুতিতে আমরা অনেকেই ইংরেজিতে কম পারদর্শী এবং সহজভাবে ইংরেজি উপস্থাপন করতে পারি না। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ভাবে বিদেশী বন্ধু বানিয়ে ফেলি। যার ফলে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যম যেমন মেসেঞ্জার হোয়াটসঅ্যাপ কথোপকথন করার সময় ইংরেজি বা অন্য যেকোন ভাষার প্রয়োজন পড়ে।

উক্ত প্রয়োজনীয় ভাষাটি না জানার ফলে আমরা বিভিন্ন বিভ্রান্তিতে পড়ে যাই। বা জানার পরেও আমরা সঠিকভাবে উপস্থাপন করতে পারিনা।  ফলে কথোপকথনে বিরক্তি আসে এবং যোগাযোগের সমস্যা তৈরি হয়। তাই এই প্রতিবন্ধকতা দূর করার জন্য আমরা আলোচনা করব কিভাবে বাংলা থেকে ইংরেজি খুব সহজেই ট্রান্সলেট করা যায় এবং আরও জানবো কিভাবে বাংলা থেকে অন্য যেকোনো ভাষায় ট্রান্সলেট করা যায়।

তাহলে চলুন জেনে নেই কিভাবে খুব সহজে বাংলা থেকে যেকোনো ভাষায় ট্রান্সলেট করা যায়।

বাংলা থেকে ইংলিশ ট্রানসলেশন (Bangla to English translation) কথোপকথন এর জন্য

বাংলা থেকে অটোমেটিক ইংরেজি বা অন্য যে কোন ভাষায় কথা বা বাক্য ট্রান্সলেট করতে আপনার ফোনের সেটিংস কিছু পরিবর্তন করতে হবে। যার যার মাধ্যমে আপনি যে কোন সময় অন্য ভাষা না জানা সত্ত্বেও অন্য ভাষায় বন্ধুদের সাথে কথা বলতে পারবেন। সেটিংস পরিবর্তনসহ কথা বলার জন্য কয়েকটি ধাপ নিচে আলোচনা করা হলো।

ধাপ ১:

অন্য ভাষায় কথা ট্রান্সলেট করতে হবে আপনাকে সর্বপ্রথম আপনার ফোনে এই দুটি অ্যাপস ইনস্টল থাকতে হবে। অ্যাপস দুটি হল

  • Gboard
  • Google translateGboard অনেক ফোনে প্রাথমিকভাবে চালু থাকে। চালু না থাকলে অ্যাপস দুটি গুগল প্লে স্টোর (Google Play store) এ খুব সহজেই পেয়ে যাবেন। সর্বপ্রথম এই দুটি অ্যাপস ডাউনলোড করে ইনস্টল করে নেবেন।

    ধাপ২:

    এরপর আপনি আপনার সেটিংস এ ভাষা পরিবর্তন সেটিংস এ যেয়ে ফোনের ডিফল্ট কিবোর্ডে Gboard করে সেটাপ করে নেবেন।

    ধাপ৩:

    এখন আপনি মেসেঞ্জার বা হোয়াটস অ্যাপ যেখানে কথা বলতে ইচ্ছুক সেখানে যেয়ে কিবোর্ড চালু করতে হবে। অতঃপর কিবোর্ড এর ডানপাশে ওপর তিনটি ডট চিহ্ন ক্লিক করুন।

    ধাপ৪:

    অতঃপর চিত্র দেখানো অপশনটির মত অনুবাদ করুন (Translate) অপশনে ক্লিক করুন।বাংলা থেকে ইংরেজি ট্রান্সলেট করতে চাইলে চিত্রে দেখানোর মত বাংলা বাম পাশে সিলেক্ট করুন এবং ডান পাশে ইংরেজি সিলেক্ট করুন।

    আপনি চাইলে এখন ইংরেজি স্বতঃস্ফূর্তভাবে না জানা সত্ত্বেও ইংরেজিতে কথা বলতে পারবেন। এখানে সবচেয়ে মজার বিষয় এই যে আপনি বাংলায় কথা বলবেন সেটি অটোমেটিক ইংরেজি বা আপনার সিলেক্ট করা ভাষায় ট্রান্সলেট হয়ে চলে যাবে।

    বাংলা থেকে যেকোনো ভাষা। Bangla to any language

    এখন প্রশ্ন হচ্ছে আপনার  প্রয়োজনীয় ভাষা যদি ইংরেজি না হয় অন্য যেকোন ভাষা হয়!!

    ধরুন আপনার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের বন্ধু চীন বা জাপানের নাগরিক। এখন আপনার তার সাথে যোগাযোগ করার জন্য চীনা ভাষা বা জাপানি ভাষা প্রয়োজন। সেই জন্য কি আপনাকে আলাদা কোন অ্যাপস ইন্সটল করতে হবে? উত্তর হচ্ছে “না” । আপনি সেই একই অ্যাপস থেকে কোনরকম ঝামেলা ছাড়াই চীনা বা জাপানি ভাষায় কথা বলতে পারবেন। তার জন্য ডানদিকের ভাষায় ইংরেজির পরিবর্তে চীন বা জাপান সিলেক্ট করতে হবে। এভাবে আপনি অপশনে থাকা আরো অনেক ভাষায় স্বতঃস্ফূর্তভাবে কথা বলতে পারবেন।

    আবার অপর পক্ষ থেকে আসা মেসেজ যদি ইংরেজি বা অন্য যে কোন ভাষায় হয় তাহলে আপনি সেটিও তৎক্ষণাৎ বাংলা করে দেখতে পারবেন। তার জন্য আপনাকে চিত্র দেখানো রিভার্স অপশনটি ক্লিক করতে হবে।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x