Blog
0 min read

চোখের পাতা লাফায় কেন তার বাস্তব উদাহারণ

চোখের পাতা লাফায় কেন

চোখের পাতা লাফায় কেন

আসসালামু আলাইকুম আজকে আলোচনা করবো চোখের পাতা লাফায় কেন সে সম্পর্কে। সারাবিশ্বে প্রত্যেকটি এবং সকল লোকদের মুখে শোনা যায় যে চোখের পাতা লাফালে বিভিন্ন ধরনের বিপদ আপদ এবং ভালো সুসংবাদ হয়। আমরা সবার মুখে এরকম কথা শুনে থাকে কিন্তু এ কথাগুলো আসলেই সত্যি কিনা সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব। 

আজকে আলোচনা করব চোখের পাতা লাফায় কেন। আমরা সব সময় দাদী নানী তাদের কাছে জানতে চাই যে তারা বলে থাকেন ডান চোখের পাতা লাফালে সুসংবাদ আসে এবং বাম চোখের পাতা লাফালে দুঃখজনক কিছু ঘটে এরকম কথা সবাই বলে থাকেন কিন্তু এ কথাগুলো আসলেই সত্যি কিনা সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করো।

কিন্তু প্রকৃত অর্থে বা হাদিসে এসব নিয়ে কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি ।চোখের পাতা লাফালে এগুলো ঘটে থাকে সেই কথাগুলো সঠিক না। চোখের পাতা  লাফাতে পারে এটাই স্বাভাবিক। পেশীর সংকোচন এর কারণে চোখের পাতা লাফায় । চোখের পাতা  এক থেকে দুই বার যদি লাফাতে থাকে সে ক্ষেত্রে চিন্তার কোন কারণ নেই। তবে এর থেকে বেশি যদি চোখ  লাফায়  তাহলে  অবশ্যই  চিকিৎসকের পরামর্শ নিন ।

চোখের পাতা লাফায় কেন এ নিয়ে নানা কথা প্রচলিত কিন্তু প্রকৃত অর্থে  ডান  চোখের পাতা লাফালে সুসংবাদ আসে এবং নাহ বাম চোখের পাতা লাফায় তখন আমরা বলে থাকি যে বিপদজনক কিন্তু আসলে এসব কিছুই হয়না। ডান চোখ লাফালে সুসংবাদ আসে এবং বাম চোখ লাফালে দুঃখজনক বিষয় ঘটে এসব আসলেই কুসংস্কার কথাবাত্রা তাই এস নিয়ে কখনো। আলোচনা এস নিয়ে কখনো আলোচনা করা উচিত না চোখের পাতার যদি বেশি লাভা নিউ শুরু করে সে ক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে চিকিৎসা করানোর চেষ্টা করুন।

চোখের পাতা লাফানোর কারণে আপনার মারাত্মক  সাতটি সমস্যা দেখা দিতে পারে। চোখের পাতা লাফায় কেন বা কি কি কারণে চোখের পাতা লাফায় সেগুলো জেনে নিন।

ক্লান্তিঃ

আমাদের যদি ঘুমের অভাব থাকে এবং শরীর ক্লান্ত লাগে সে ক্ষেত্রে চোখ লাফাতে পারে। ঘুম না হলে চোখের পাতা লাপাতা থাকে তবে ঘুম যদি ঠিক মত হয় সে ক্ষেত্রে চোখের পাতা আর লাফালাফি করবে না।

মানসিক চাপঃ

আমাদের যদি কোনো ভাবে কোনো কারণে মানসিক চাপ পড়ে শরীরে তখন বিভিন্ন ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে। চোখের পাতা লাফানোর কারণ হচ্ছে মানসিক চাপ যদি পড়ে তাহলে সে ক্ষেত্রে চোখের পাতা লাফালে পারে। তাই মানসিক চাপ থেকে মুক্তি পাওয়ার চেষ্টা করুন।

 দৃষ্টি সমস্যাঃ

চোখের পাতা লাফায় কেন তার কারণ খুজতে গেলে বলব, আপনার চোখের যদি দৃষ্টিগত কোন সমস্যা হয় সেক্ষেত্রে চোখের ওপর চাপ পড়ে অতিরিক্ত এজন্য চোখের পাতা লাফাতে পারে। চোখের পাতা লাফানোর কারণ যেমন  কম্পিউটারে কাজ করলে, মোবাইল ফোনে কাজ করলে, টিভি দেখলে ইত্যাদির কারণে চোখের পাতা লাফাদে পারে।

এ্যালকোহল এবং ক্যাফিনঃ

অনেক বিশেষজ্ঞ মনে করেন ক্যাফিন এবং এ্যালকোহল অতিরিক্ত সেবনে চোখের পাতা লাফাতে পারে। তাই ক্যাফিন এবং এ্যালকোহলের ব্যবহার মাত্রা কমিয়ে এনে এ সমস্যা থেকে উদ্ধার পাওয়া সম্ভব।এসব সমস্যার কারণে চোখের পাতা লাপাতা পারে।

চোখের শুষ্কতাঃ

চোখের সুরক্ষার রাখতে হলে আপনাকে কম্পিউটার  কম কম চালাতে হবে টিভি কম দেখা ভালো মোবাইল কোনটা ভালো এসব কাজ থেকে যদি আপনি অল্প অল্প করে বিরত থাকতে পারেন সেক্ষেত্রে আপনার চোখের এই সমস্যাগুলো দেখা দেবে না।

এ্যালকোহলের প্রভাবে, চোখে কন্ট্যাক্ট ল্যান্স ঠিকমতো না বসলে কিংবা বয়সজনিত কারণে চোখ শুকিয়ে যেতে পারে। চোখের শুষ্কতা চোখের পাতা লাফানোর জন্য দায়ী বলে চক্ষু চিকিৎসকরা মনে করেন।

পুষ্টির ভারসাম্যহীনতাঃ

অনেকক্ষণ ধরে যদি আপনি পত্রিকা পড়েন সে ক্ষেত্রে চোখের পাতা লাপাতা পারে এরকম বিভিন্ন ধরনের কাজে যদি ব্যস্ত থাকেন এর জন্য চোখের পাতা লাফালে পারে কিন্তু যদি অতিরিক্ত চোখের পাতা লাফায় সে ক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে চিকিৎসা করাতে হবে। চোখের পাতা লাফানোর কিছু কারণ রয়েছে আপনার শরীরের যদি পুষ্টিগুণ একেবারে কম থাকে এবং ম্যাগনেসিয়ামের অভাব থাকে ইত্যাদি এসব থাকার কারণে আপনার চোখের পাতাতে পারে।

 এলার্জিঃ

এলার্জি খুবই মারাত্মক রোগ। তবে এলার্জি যদি চোখে হয় সে ক্ষেত্রে সেটা অনেক ভয়ঙ্কর। চোখে এলার্জি চোখ হাত দিয়ে হয় এজন্য বিভিন্  ধরনের সমস্যা দেখা দেয়। এলার্জির কারণে হাত দিয়ে চোখ চুলকানোর কারণে চোখ দিয়ে পানি বের হয় এরপর লাফাতে থাকে। চোখের পাতা লাফানোর জড়িত না থাকলেও যদি মাতৃত্বের চোখের পাতা লাফায় তবে সেটি আপনাকে মন্দ সংবাদ দেবে যে আপনাকে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে চিকিৎসা করাতে হবে।

আমরা অনেকেই বলে থাকি চোখের পাতা লাফালে বিভিন্ন ধরনের সমস্যা হয়। অতিরিক্ত চোখের পাতা যদি লাফায় এটা আসলেই বিপদজনক এবং চোখ যদি একেবারে লাফানো বন্ধ করে ফেলে এটা সুসংবাদ এরকম ভাবে বোঝানো হয়েছে।

কোথাও নেই যে ডান চোখ লাফালে সুসংবাদ আসবে এবং বাম চোখ লাফালে দুঃখজনক কিছু ঘটনা ঘটবে। এই বিষয়টাকে এভাবে বলা হয়েছে যে চোখ যদি দুই থেকে তিন বারের বেশি লাফায় সে ক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে এবং চোখ যদি একেবারে লাফানো বন্ধ করে ফেলে সেটা সুসংবাদ।

চোখ লাফানো নিয়ে আমাদেরকে এভাবে বোঝানো হয়েছে কিন্তু মুরুব্বীরা এই বিষয়টাকে অন্যভাবে বলে থাকেন। আসলে এই বিষয়গুলো কতটা সত্য এবং কতটা মিথ্যা সে সম্পর্কে বিস্তারিত উপরে ভাবে জানানো হয়েছে সকলেই আমাদের সঙ্গে থেকে পোস্টটি ভাল করে জেনে নিন।

আশা করছি আপনারা চোখের পাতা লাফায় কেন তার সঠিক জবাব পেয়েছেন।

Rate this post