Blog

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি যোগ্যতা, খরচ ও টিউশন ফি

1 min read

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি যোগ্যতা, খরচ ও টিউশন ফি

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ সম্পর্কে আলোচনা করব। বাংলাদেশের একটি বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয় | ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয়টি ২০০১ সালে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আইন ১৯৯২-এর অধীনে ফজলে হাসান আবেদের ব্র্যাক সংস্থার শাখা হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হয়।বাংলাদেশে যে কয়টি সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে তার মধ্যে ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে অন্যতম | মানসম্মত উচ্চশিক্ষা এবং শিক্ষার সুনিবিড় পরিবেশ গড়ে তুলে ইতোমধ্যে এ বিশ্ববিদ্যালয়টি ব্যাপক সুনাম অর্জন করেছে। দক্ষ ও যোগ্যতাসম্পন্ন শিক্ষক, যুগোপযোগী কারিকুলাম, গবেষণার যথাযোগ্য পরিবেশ, সমৃদ্ধ লাইব্রেরি, ব্যতিক্রমী নানা কার্যক্রম এখানকার শিক্ষার্থীদের মধ্যে এক ধরনের স্বাতন্ত্র্য তথা ভিন্নতা এনে দিয়েছে।যেহেতু স্টুডেন্টদের মধ্যে ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কে জানার অনেক আগ্রহ রয়েছে তাই এই অনুচ্ছেদের ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়  এর গুরুত্বপূর্ণ তথ্যগুলো তুলে ধরবো। ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ সম্পর্কে নিচে বিস্তারিত ত‌থ‌্য তুলে ধরা হলো। 

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ হয় ১২,০০০ টাকা। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যেই অবস্থিত। সকল প্রকার তথ্য প্রশাসনিক ভবন থেকেই সংগ্রহ করা যায়। সেমিস্টারের কম্পিউটার ল্যাব ফি ১,৫০০ টাকা, স্টুডেন্ট একটিভিটি ফি ৬০০ টাকা এবং লাইব্রেরী ফি ৭৫০ টাকা।

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি যোগ্যতা

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ সম্পর্কে জানার পাশাপাশি ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি ন্যূনতম যোগ্যতা জেনে নিন

  • এসএসসি বা সমমান এবং এইচএসসি বা সমমানের পরীক্ষায় আলাদাভাবে ন্যূনতম জিপিএ-৩.৫ (ঐচ্ছিক বিষয়সহ) থাকতে হবে।
  • গ্রেডিং স্কেল (এ=৫, বি=৪, সি=৩ এবং ডি=২) হিসেবে ও-লেভেলে ৫টি বিষয় এবং এ–লেভেলে ২টি বিষয়সহ আলাদাভাবে সর্বনিম্ন জিপিএ–২.৫ থাকতে হবে। কোনো বিষয়ে ‘ই’ গ্রেড গ্রহণযোগ্য নয়।
  • কোনো স্বীকৃত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে ১২ বছর শিক্ষা কার্যক্রম সম্পন্ন করা শিক্ষার্থীরাও আবেদন করতে পারবেন।
  • আইবি-ডিপির শিক্ষার্থীরা ডিপিতে ন্যূনতম ২৪ স্কোর পেলে ভর্তির আবেদনের জন্য বিবেচিত হবেন।
  • বাংলাদেশের বাইরে পড়া শিক্ষার্থীদের নিজস্ব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে একাডেমিক নথিপত্রের যাচাই করা বা সত্যায়িত কপি এবং ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড থেকে সমমানের সনদ জমা দিতে হবে।

শিক্ষার্থীরা অনলাইনের মাধ্যমে পছন্দের বিষয়ে ভর্তির আবেদন করতে পারবেন। ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় নির্দিষ্ট বিষয়ে ভর্তির যোগ্যতা আছে কি না, কিংবা ইংরেজি ও গণিতে বাড়তি যত্নের প্রয়োজন আছে কি না, তা যাচাই করতে শিক্ষার্থীদের সাক্ষাৎকার নেওয়া হয়। নির্দিষ্ট কিছু প্রোগ্রামে ভর্তির জন্য বিশেষায়িত ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হয়, যেমন—স্থাপত্যের শিক্ষার্থীদের ছবি আঁকার দক্ষতার পরীক্ষা দিতে হয়। কেউ কোনো বিষয়ের ভর্তির শর্ত পূরণে ব্যর্থ হলেও তাঁর জন্য বিকল্প ব্যবস্থা আছে। যাঁদের ইংরেজি ভাষায় দক্ষতা বাড়ানো প্রয়োজন, বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির আগে তাঁদের ‘প্রি-ইউনিভার্সিটি কোর্স’ করতে হয়।

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন ক্যাম্পাস

২০২২ সালের শেষে নান্দনিক ও পরিবেশবান্ধব এক নতুন ক্যাম্পাসে স্থানান্তরিত হওয়ার পরিকল্পনা করছে ব্র্যাক ইউনিভার্সিটি। সাভারে অবস্থিত ৩০ একরের আবাসিক ক্যাম্পাস ও বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য স্থাপনাকে পূর্ণতা দেবে এই নতুন প্রাঙ্গণ।

ব্রাক  বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুষদ ও বিভাগ সমূহ

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ সম্পর্কে তো জানবই পাশাপাশি এ বিশ্ববিদ‌্যালয়ে কি কি অনুষদ ও বিভাগ রয়েছে তা জেনে নিন। রোবটিকসসহ নানা ক্ষেত্রে গবেষণার জন্য ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির বেশ কয়েকটি বিভাগ ও ইনস্টিটিউটের সুনাম আছে। রোহিঙ্গা সংকট, জনস্বাস্থ্য, পরিবেশ উন্নয়ন, উদ্ভাবনী স্থাপত্য এবং পোশাকশিল্পের ব্যবসায়িক উন্নয়নের মতো বিভিন্ন উল্লেখযোগ্য কর্মকাণ্ডে যুক্ত আছে এই বিশ্ববিদ্যালয়। জন হপকিনস ইউনিভার্সিটির গ্লোবাল হেলথ স্বীকৃতি পেয়েছে ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির অধীন জেমস পি গ্র্যান্ট স্কুল অব পাবলিক হেলথ। এ ছাড়া বিশ্বসেরা ১০০ ‘থিঙ্ক ট্যাংক’–এর তালিকায় স্থান পেয়েছে ব্র্যাক ইনস্টিটিউট অব গভর্ন্যান্স অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট। শিক্ষা, প্রশিক্ষণ, গবেষণা ও নানা কার্যক্রমের সুবাদে ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির সেন্টার ফর পিস অ্যান্ড জাস্টিসের বিশেষ সুনাম আছে। বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের টিকাদান বণ্টন কৌশল নিয়ে যুক্তরাজ্যের বার্মিংহাম ইউনিভার্সিটির সঙ্গে এক হয়ে কাজ করছে এই বিশ্ববিদ্যালয়।

ব্র্যাক ইউনিভার্সিটিতে অনেকগুলো স্কুল ও ইনস্টিটিউটের আওতায় বিভিন্ন বিষয়ে পড়াশোনার ব্যবস্থা রয়েছে। এগুলো হলো-

  1. ব্র্যাক ইনস্টিটিউট অফ গভর্নেন্স অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট
  2. ব্র্যাক ইনস্টিটিউট অফ ল্যাঙ্গুয়েজ (বি.আই.এল.)
  3. ব্র্যাক ইনস্টিটিউট অব এডুকেশন ডেভেলপমেন্ট
  4. ব্র্যাক জেমস পি গ্রান্ট স্কুল অফ পাবলিক হেলথ

 ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় বিষয় তালিকা

  1. স্থাপত্য বিভাগ
  2. অর্থনীতি ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ
  3. ইংরেজি  বিভাগ
  4. গনিত ও প্রাকৃতিক বিজ্ঞান বিভাগ
  5. ফার্মেসি বিভাগ
  6. কম্পিউটার Science ও প্রকৌশল বিভাগ ( CSE)
  7. ইলেকট্রিক  এন্ড  ইলেক্ট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং ( EEE)
  8. ইলেক্ট্রনিক এন্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং
  9. উপরোক্ত বিভাগ সমুহে ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নের সুযোগ রয়েছে।

ব্র্যাক ইউনিভার্সিটি টিউশন ফিস

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়তে স্নাতক শ্রেণিতে ভর্তি আবেদন করতে ১৫০০ টাকা অনলাইনে পরিশোধ করতে হবে।

ডিগ্রির নাম – স্থাপত্যের স্নাতক

  • মোট ক্রেডিট- 201 ক্রেডিট
  • ফি- 14,26,000 টাকা

ডিগ্রির নাম – বিবিএ

  • মোট ক্রেডিট- 130 ক্রেডিট
  • ফি- ৮,৯১,০০০ টাকা

ডিগ্রির নাম – সিএসই (বিএসসি)

  • মোট ক্রেডিট- 136 ক্রেডিট
  • ফি- 9,57,000 টাকা

ডিগ্রির নাম – ইসিই (বিএসসি)

  • মোট ক্রেডিট- 36 ক্রেডিট
  • ফি- 9,27,000 টাকা

ডিগ্রির নাম – EEE (বিএসসি)

  • মোট ক্রেডিট- 136 ক্রেডিট
  • ফি- 9,27,000 টাকা

ডিগ্রির নাম – নৃবিজ্ঞানে বিএসএস

  • মোট ক্রেডিট- 120 ক্রেডিট
  • ফি- ৮,৩১,০০০ টাকা

ডিগ্রির নাম – অর্থনীতিতে বিএসএস

  • মোট ক্রেডিট- 120 ক্রেডিট
  • ফি- ৮,৩১,০০০ টাকা

ডিগ্রির নাম – ইংরেজিতে বি.এ

  • মোট ক্রেডিট- 120 ক্রেডিট
  • ফি- ৮,৩১,০০০ টাকা

ডিগ্রির নাম – এলএলবি অনার্স

  • মোট ক্রেডিট- 135 ক্রেডিট
  • ফি- 9,21,000 টাকা

ডিগ্রির নাম -পদার্থবিজ্ঞানে বিএসসি

  • মোট ক্রেডিট- 132 ক্রেডিট
  • ফি- 9,03,000 টাকা

ডিগ্রির নাম – বিএসসি ইন এপিই

  • মোট ক্রেডিট- 130 ক্রেডিট
  • ফি- ৮,৯১,০০০ টাকা

ডিগ্রির নাম – গণিতে বিএসসি

  • মোট ক্রেডিট- 127 ক্রেডিট
  • ফি- ৮,৭৩,০০০ টাকা

ডিগ্রির নাম – বিএসসি ইন মাইক্রোবায়োলজি

  • মোট ক্রেডিট- 136 ক্রেডিট
  • ফি- 9,27,000 টাকা

ডিগ্রির নাম – ফার্মেসি ব্যাচেলর

  • মোট ক্রেডিট- 164 ক্রেডিট
  • ফি- 10,91,000 টাকা

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ । ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয় নতুন ভর্তি হতে হলে আপনাকে যে পরিমান ফি প্রদান করতে হবে-

ফার্মেসি ঃ- ৬ টি Credit ফি বাবদ ৩৬,০০০ টাকা + সেমিস্টার ফি ১০,০০০ টাকা + Admission Fees ২৫,০০০ টাকা + লাইব্রেরী মেম্বারশিপ কার্ড ২০০০ টাকা । সর্বমোট= ৭৩,০০০ টাকা ( যা অফেরত যোগ্য)

আর্কিটেকচার এন্ড CSE :-  ৬ টি Credit ফি বাবদ ৩৬,০০০ টাকা + সেমিস্টার ফি ৭,০০০ টাকা + Admission Fees ২৫,০০০ টাকা + লাইব্রেরী মেম্বারশিপ কার্ড ২০০০ টাকা + কম্পিউটার ল্যাব ফি ২৫০০ টাকা । সর্বমোট= ৭২, ৫০০ টাকা ( যা অফেরত যোগ্য)

অন্যান্য সকল Course এ  :-  ৬ টি Credit ফি বাবদ ৩৬,০০০ টাকা + সেমিস্টার ফি ৭,০০০ টাকা + Admission Fees ২৫,০০০ টাকা + লাইব্রেরী মেম্বারশিপ কার্ড ২০০০ টাকা । সর্বমোট= ৭৩,০০০ টাকা ( যা অফেরত যোগ্য)

এখানে বেশিরভাগ তথ্যগুলোই বিভিন্ন উৎস থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে যা প্রতিনিয়ত পরিবর্তনশীল তাই যারা ব্র্যাক  বিশ্ববিদ্যালয় যে মুহূর্তে ভর্তি হতে চান সেই মুহূর্তের তথ্য পেতে চান তারা ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট অথবা সরাসরি ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয়ের  অফিসের সাথে যোগাযোগ করে জেনে নিতে পারেন। আশা করছি ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ সম্পর্কে আপনার একটা পরিপূর্ণ ধারনা হয়েছে। ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি খরচ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ‌্য জানার জন‌্য ব্র‌্যাক বিশ্ববিদ‌্যালয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে থেকে ঘুরে আসতে পারেন।

Rate this post
Mithu Khan

I am a blogger and educator with a passion for sharing knowledge and insights with others. I am currently studying for my honors degree in mathematics at Govt. Edward College, Pabna.

Leave a Comment