Health
1 min read

মাথায় নতুন চুল গজানোর ঘরোয়া উপায়

মাথায় নতুন চুল গজানোর ঘরোয়া উপায়

মাথায় নতুন চুল গজানোর উপায়

নতুন চুল গজানোর উপায় । মাথার চুল পড়ে যাওয়ার কারণে আমাদের সকলেরই টেনশন হয়। তাই   মাথায় নতুন গজায় সাহায্য এমন ঘরোয়া আপনার আলোচনা করব।  এই পৃথিবীতে এমন লোক খুঁজে পাওয়া যায় না যে মাথার চুল না থাকলে কেউ ঠিক থাকে।   মাথায় মাথার চুল যদি না  থাকে তাহলে এটা টেনশন ব্যাপার। 
তাই মাথার চুল ঠিক রাখার জন্য এবং নতুন চুল গজানোর উপায় জানার জন্য আপনাকে কিছু নিয়ম অবলম্বন করতে হবে।   প্রথমত সঠিক সময়ে ঘুমানো দরকার, দ্বিতীয় তো টেনশন থাকা, তৃতীয়তঃ দুশ্চিন্তা না করা, পুষ্টিকর খাবার খাওয়া, চুলের যত্নে রাখা, সঠিকভাবে মাথায় তেল ব্যবহার করা. নিয়ম নিয়মমতো শ্যাম্পু এরকম বিভিন্ন ধরন নিয়ম যদি সঠিক ভাবে পালন করতে পারেন তাহলে আপনার মাথার চুল সব দিক থেকে অনেকটাই ভালো থাকবে।
 এর সঙ্গে আজকে আলোচনা করব মাথায় নতুন চুল গজানো সম্পর্ক।  বিভিন্ন রোগের কারণে এবং বিভিন্ন সমস্যার কারণে যেমন হরমোনের সমস্যা ডায়াবেটিসের সমস্যা প্রেসারের সমস্যা ইত্যাদি এসবের কারণে মাথার চুল থাকে না তাই ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী আপনি চিকিৎসা  নিতে পারেন।  চুলের স্বাস্থ্যের জন্য ভিটামিন বি এর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে
 নারীদের সৌন্দর্য হচ্ছে এবং পুরুষদের সৌন্দর্য হচ্ছে চুল চুল সুন্দর করতে বিভিন্ন ধরনের নিয়ম মেনে কাজ করতে হয়।
  চুল গজানোর জন্য যেসব খাদ্য তালিকা দরকার সেসব খাদ্যতালিকা জেনে নিন।  যে কোন ধরনের লাল সবুজ অবশ্যই খাওয়া উচিত। আপনারা সাধারণত যে যে তেল ব্যবহার করেন সেই তেলের সঙ্গে এক পিস এ ক্যাপসুল মিশিয়ে মাথায় মেসেজ করুন।
চুল গজাতে সাহায্য করবে লেবু গাজর-শসা যেকোনো লাল সবজি ইত্যাদি আপনার চুলকে গজাতে সাহায্য করবে।
তাহলে চলুন জেনে নেওয়া যাক  নতুন চুল গজানোর উপায় বা  ঘরোয়া পদ্ধতি সমূহঃ

পেঁয়াজের রসঃ

আমাদের মধ্যে অনেকের কাছে পেঁয়াজের রস গন্ধটা একদম বিরক্ত কর কিন্তু আপনার চুল সুন্দর রাখতে খুব সাহায্য করবে এই পেঁয়াজের রস।  চুল পড়া থেকে বিরত থাকবে চুল ঘন লম্বা সিল্কি ইত্যাদি। কয়েক পিচ পেঁয়াজ ভালো করে কেটে ধুয়ে নিন।
 প্রথমে ব্লেন্ডার বা পাঠাতে পিষে রস করতে হবে । এর পর এক মগ  পানির সঙ্গে পেঁয়াজের রস মিশিয়ে নিন।  তারপর এই মিশ্রণটি ভালোভাবে চুলের গোড়ায় লাগিয়ে দিন।  কিছুক্ষণ হালকা  গরম  পানিতে  ধুয়ে নীল ।  তার পর শ্যাম্পু  দিয়ে ভালো করে ধুয়ে নিন । সপ্তাহে দুই থেকে তিন দিন এই মিশ্রণটি ব্যবহার করুন।

নিম পাতার উপকারিতাঃ

 নিমপাতা ত্বকের জন্য ভালো ।  কিন্তু  নিমপাতা শুধু ত্বকের উপকার করেন না এর সঙ্গে নিমপাতা চুলের জন্য কার্যকারী । নিম পাতার রস  চুল  গজাতে সাহায্য করবে।  পরিমাণমতো নিমপাতা নিয়ে এবং পরিমাণ মত পানি নিয়ে কিছুক্ষণ জ্বাল করে নিন। এই মিশ্রণটি ঠাণ্ডা করে সংরক্ষণ করতে পারবেন। চুলের শ্যাম্পু করার পর নিমের এই পানি দিয়ে চুল ভালো করে ধুয়ে নিতে হবে। সপ্তাহে একদিন ব্যবহার করুন।  ত্বকের যে কোন সমস্যা ও মাথার খুলির এবং অন্য কোন সমস্যার জন্য নিমপাতা খুব কার্যকরী।  নিম পাতা চুলের গোড়া শক্ত করবে এবং চুলকে সিল্কি।

মেথি ও কালোজিরা এর উপকারিতাঃ

নতুন চুল গজানোর উপায় এর মধ‌্যে উল্লেখ‌্যযোগ‌্য মেথি ও কালোজিরা সর্বপ্রথম ভালো করে শুকিয়ে নিন।  এরপর ব্লেন্ডারে পাটায় পিষে গুঁড়ো করে নিন। তারপর মেথি ও কালোজিরা নারিকেল তেলের সঙ্গে মিশিয়ে নিন।  এই তিনটি উপকরণ একটু ফুটিয়ে নিন । তারপর ঠান্ডা করে নিন। আপনি চাইলে এই মিশ্রণটি একটি কাচের বোতলে সংরক্ষণ করতে পারবেন। এর ব্যবহার হচ্ছে সপ্তাহে একদিন। এবং  এই মিশ্রণটি সংরক্ষণ করার সময় দুই সপ্তা। তিন সপ্তাহের মধ্যে মিশ্রণটি ব্যবহার করতে হবে।

 মেথির উপকারিতাঃ

নতুন চুল গজানোর উপায় গুলোর মধ‌্যে মেথি নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে।  চুলের যত্ন উপকারী উপাদান হলো। একটি পরিষ্কার বাটিতে এরমধ্যে পরিমাণমতো পানি দিয়ে   মেথি ভিজিয়ে রাখুন সারা রাতের জন্য।  পরের দিন সকালে ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নিন। এই মিশ্রণের সঙ্গে আপনি চাইলে মধু ও দই ব্যবহার করতে পারেন। এই মিশ্রণটি সারাদিনের জন্য ভালো করে চুলের গোড়ায় লাগিয়ে নিন।  শুকিয়ে যাওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। এরপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে শ্যাম্পু করে ধুয়ে ফেলুন। তিন থেকে চার ঘণ্টা রাখতে হবে।
আজকে আলোচনা করেছি মাথায় নতুন চুল গজানোর ঘরোয়া পদ্ধতি সম্পর্কে। আমাদের পোস্ট মাধ্যমে চুলের বিভিন্ন সমস্যা তুলে ধরা হয়েছে সকলেই মনোযোগ দিয়ে দেখে নিন।  চুলের খুব কাজে লাগবে আমি মনে করি।
 আজকে এ পর্যন্তই আবার কোন  নতুন পোষ্ট নিয়ে আপনাদের মাঝে শেয়ার করব।

নতুন চুল গজানোর উপায়, চুল পড়া বন্ধ করার উপায়, চুল ঘন করার উপায়, চুলের যত্ন, চুল সিল্কি করার উপায় , চুল পড়া বন্ধ করার তেল

Rate this post