পড়াশোনা
1 min read

পদার্থবিজ্ঞান ব্যবহারিক প্রশ্ন ও উত্তর (নবম ও দশম শ্রেণি)

প্রশ্ন-১. সমতলের বক্রতার ব্যাসার্ধ কত?
উত্তরঃ সমতলের বক্রতার ব্যাসার্ধ অসীম।

প্রশ্ন-২. কোনো তলের বক্রতা বেশি হলে এর ব্যাসার্ধ কমে না বাড়ে?
উত্তরঃ ব্যাসার্ধ কমে।

প্রশ্ন-৩. স্ফেরোমিটারে কী কী ত্রুটি থাকতে পারে?
উত্তরঃ স্ফেরোমিটারে দুই ধরনের ত্রুটি থাকতে পারে। যথা : যান্ত্রিক ত্রুটি ও পিছট ত্রুটি।

প্রশ্ন-৫. লম্বন ত্রুটি কী?
উত্তরঃ দৃষ্টির দিক পরিবর্তনের জন্য কোনো বস্তুর অবস্থানের আপাত পরিবর্তনকে লম্বন এবং ফলে পাঠ নিতে যে ভুল হয় তাকে লম্বন ত্রুটি বলে।

প্রশ্ন-৬. আয়তন কাকে বলে?
উত্তরঃ কোনো বস্তু যে স্থান দখল করে তাকে ঐ বস্তুর আয়তন বলে।

প্রশ্ন-৭. অনিয়ত আকৃতির কঠিন বস্তুর আয়তন কীভাবে নির্ণয় করবে?
উত্তরঃ মাপচোঙের সাহায্যে।

প্রশ্ন-৮. একক কাকে বলে? একক কত প্রকার ও কি কি?
উত্তরঃ যে আদর্শ পরিমাণের সাথে তুলনা করে ভৌত রাশিকে পরিমাপ করা হয় তাকে পরিমাপের একক বলে। একক দুই প্রকার। যথা- লব্ধ একক ও মৌলিক একক।

প্রশ্ন-৯. মৌলিক একক কাকে বলে? মৌলিক একক কয়টি ও কি কি?
উত্তরঃ যেসব রাশির একক অন্য রাশির এককের ওপর নির্ভর করে না তাদেরকে মৌলিক একক বলে। মৌলিক এককের সংখ্যা সাতটি। যথা- দৈর্ঘ্য, ভর, সময়, তাপমাত্রা, তড়িৎপ্রবাহ, দীপনক্ষমতা, পদার্থের পরিমাণ।

প্রশ্ন-১০. লব্ধ একক কাকে বলে? আয়তনের একক কি?
উত্তরঃ যে সকল একক মৌলিক একক থেকে পাওয়া যায় তাকে লব্ধ একক বলে। আয়তনের একক হলো একটি লব্ধ একক। এস.আই পদ্ধতিতে আয়তনের একক ঘন মিটার (m3) এবং এর উপগুণিতক একক হলো সি.সি (C.C) অর্থাৎ ঘন সেন্টিমিটার।

প্রশ্ন-১১. পরিমাপ বলতে কী বুঝ?
উত্তরঃ কোনো কিছুর পরিমাণ নির্ণয় করাকে বলা হয় পরিমাপ। সহজ কথায় কোনো কিছুর মাপ-জোখের নাম পরিমাপ।

প্রশ্ন-১২. এস.আই (S.I) একক বলতে কী বুঝ? এই পদ্ধতির মৌলিক এককগুলোর নাম কী?
উত্তরঃ এস.আই (S.I) একক বলতে International System of Units-কে বুঝায়। এর অর্থ এককের আন্তর্জাতিক পদ্ধতি।

S.I পদ্ধতিতে মৌলিক এককগুলো হচ্ছে-দৈর্ঘ্যের একক – মিটার (m)
ভরের একক – কিলোগ্রাম (Kg)
সময়ের একক – সেকেন্ড (s)
তাপমাত্রার একক – ডিগ্রি এবং কেলভিন (K)
বিদ্যুৎ প্রবাহের একক – অ্যাম্পিয়ার (A)
দীপন ক্ষমতার একক – ক্যান্ডেলা (Cd)
পদার্থের পরিমাপের একক – মোল (mol)
কোণের একক – রেডিয়ান (rad)

বল কাকে বলে?
উত্তরঃ যা স্থির বস্তুর উপর ক্রিয়া করে তাকে গতিশীল করে বা করতে চায় এবং গতিশীল বস্তুর উপর ক্রিয়া করে তার গতির পরিবর্তন করে বা করতে চায় তাকে বল বলে।

Rate this post