Information
1 min read

কনের বিয়ের কেনাকাটার তালিকা | বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা | বরের বিয়ের বাজার লিস্ট

বিয়ের সাজ একটি মেয়ের জন্য অনেক দিনের অপেক্ষার শখের একটি সাজ যার জন্য সে অনেক বছর সাধনা করে থাকে। এমন কিছু কসমেটিকস পণ্যের তালিকা রয়েছে যা শুধুমাত্র মেয়েরা ব্যবহার করে থাকে ছেলেরা নয়।

ছেলেদের বিয়ের কসমেটিকস এর তালিকার তুলনায় মেয়েদের বিয়ের কসমেটিকস এর  লিস্টের পরিমাণ খুব বেশি হয়ে থাকে। তাই বিয়ের সাজে সজ্জিত হবার জন্য মেয়েরা বিভিন্ন রকমের কসমেটিকস ও জিনিসপত্র ব্যবহার করে থাকে।

সাধারণত মেয়েরা বিয়ের সাজের মতো সাজতে পারে না বা প্রয়োজন হয়ে ওঠে না। তাই এই বিবাহ উপলক্ষে  নিজেকে আরো সুন্দর এবং পরিপাটি করে সাজানোর জন্য এখন অনেক ধরনের কসমেটিকস জিনিস মার্কেটে কিনতে পাওয়া যায় সেগুলো ব্যবহারের মাধ্যমে নিজেকে আরো আকর্ষনীয় করে তোলা সম্ভব।

একটি বিয়ের অনুষ্ঠানের জন্য বিভিন্ন ধরনের জিনিসের ব্যবস্থা করা লাগে তার মধ্য অন্যতম হলো বিয়ের কসমেটিকস এর তালিকা বাংলা।

বিয়ের কসমেটিকস এর লিস্ট শুধুমাত্র কনের জন্যই বরাদ্দ নয়, বরের জন্যও বিয়ের কসমেটিক্স পণ্যের আলাদা তালিকা জরুরী যেন বিয়ের দিন বর ও কনে দুজনকেই সবার চেয়ে বেশি আকর্ষণীয় ও সুন্দর দেখায়।

বিয়ের অনুষ্ঠানের আগে যেহেতু বিভিন্ন জিনিসের ব্যবস্থা করা লাগে তাই কমপক্ষে এক থেকে দেড় মাস পূর্বে বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা করে রাখা ভালো যাতে পরবর্তীতে ক্রয় করার সময় অতিরিক্ত সময় অপচয় ও ব্যয় না হয়, খুব সহজেই মার্কেট থেকে জিনিসগুলো ক্রয় করতে সুবিধা হয়।

বরের বিয়ের বাজার লিস্ট দোকানে নিয়ে যাওয়ার পর খেয়াল রাখতে হবে যেন কোন ভেজাল জাতীয় পণ্য বা দুই নাম্বার ডুপ্লিকেট পণ্য ক্রয় না করে ফেলে।এমন কিছু মার্কেট ও বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের নামিদামী দোকান আমাদের দেশে রয়েছে যেখানে ভেজাল জাতীয় কসমেটিকের পরিমাণ অত্যন্ত বেশি।

ক্রেতারা সেখানে ক্রয় করতে গেলে মনে করে থাকেন যেহেতু এটি নামিদামি দোকান হয়তো এখানে আসল পণ্য বা বিদেশি পণ্যই রয়েছে। ব্যাপারটি অকদমই তা নয়। এই ধরনের বড় বড় নামিদামি দোকান গুলোর ভেজাল কসমেটিক্স শুধুমাএ বর – কনের জন্য অনিরাপদ নয় এমনকি সাধারণ সকল জনগণের জন্য অনিরাপদ ও ঝুঁকিপূর্ণও বটে।

কনের বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা | কনের জন্য বিয়ের বাজার লিস্ট

বিয়ে কসমেটিকস পণ্যের তালিকায় কনের জন্য হেয়ার কেয়ার কিছু প্রোডাক্ট খুবই গুরুত্বপূর্ণ যা তার চুলের যত্নে খুব উপকারি এমনকি চুলের ত্বককে সুস্থ ও সবল রাখতে সাহায্য করবে। সেগুলো হলো-

চুলের শ্যাম্পু: চুলকে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখতে চুলের শ্যাম্পুর বিকল্প নেই।

কনডিশনার: চুলে শ্যাম্পু করার পর কন্ডিশনার ব্যবহার করা জরুরী যা কনের চুলকে সিল্কি রাখতে সহায়তা করবে।

হেয়ার মাস্ক: কন্ডিশনারের বদলে অনেক সময় হেয়ার মাস্ক ব্যবহার করা যেতে পারে।

হেয়ার প্যাক: চুলের যত্নে কনেকে সপ্তাহে ১ থেকে ২ দিন হেয়ার প্যাক ব্যবহার করতে হবে।

হেয়ের ওয়েল: চুলের খাদ্য ও প্রধান উপাদান হিসেবে ওয়েল প্রয়োজন।

অলিভ ওয়েল/কোকোনাট ওয়েল/ক্যাসটর ওয়েল: অনেকে বিভিন্ন ধরনের তেল চুলে ব্যবহার করে থাকেন।কনে তার পছন্দ ও চাহিদা অনুযায়ী যে কোন একটি তেল ব্যবহার করতে পারেন।

হেয়ার স্প্রে: হেয়ারস্টাইলের পর কনের চুলকে সেট রাখতে একটি হেয়ার স্প্রে জরুরী।

হেয়ার স্ট্রেটনার: বিভিন্ন ধরনের চুলের ফ্যাশন তৈরিতে বা ফ্যাশন করতে হেয়ার স্ট্রেটনার ব্যবহারের  ফলে চুল সোজা থাকতে পারে। যা কনের বাহ্যিক সৌন্দর্য আর দ্বিগুণ বাড়িয়ে তোলে।

হেয়ার ড্রায়ার: গোসলের পর দ্রুত চুল শুকানোর জন্য কনের জন্য একটি হেয়ার ড্রায়ার অত্যন্ত জরুরী।

কনের বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা কনের জন্য বডি কেয়ার প্রোডাক্ট গুলোর মধ্যে রয়েছে-

  1. রুমাল ৬টি ও ৫টি তোয়ালে
  2. নেইলকাটার
  3. বডি ওয়াশ
  4. সাবান
  5. পাউডারবক্স ও পাউডার
  6. ফেইস লোশন
  7. বডি লোশন
  8. মাউথ ওয়াশ ও ফেসওয়াশ
  9. টোনার
  10. সিরাম
  11. ময়েশ্চারাইজার
  12. সান স্ক্রিন ক্রিম
  13. নাইট ক্রিম ও ডে ক্রিম
  14. টুথ ব্রাশ ও টুথ পেস্ট

 

কনের জন্য বিয়ের বাজার লিস্ট এর তালিকায় মেকআপ প্রোডাক্ট গুলোর মধ্যে রয়েছে-

মেকআপ ব্রাশ সেট: মেকআপ করার জন্য বিভিন্ন সাইজের ব্রাশ সেট প্রয়োজন হয় কারণ ফেইসের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন ধরনের প্রোডাক্ট ইউজ করা হয় বলে একটি ব্রাশ দিয়ে সম্পূর্ণ মেকওভার করা সম্ভব হয়ে ওঠে না। তাই মার্কেট থেকে যার যার প্রয়োজন মতো ব্রাশ সেটগুলো কিনে নিতে হবে।

আই শেডো প্যালেট: এমন একটি আই শেডো প্যালেট কিনতে হবে যেখানে সব ধরনের কালার উপস্থিত হয়েছে।

বড় একটি মেকআপ বক্স: সকল ধরনের মেকআপ অরগানাইজ করে রাখার জন্য একটি বড় মেকআপ বক্স জরুরী।

প্রাইমার: মেকআপ লম্বা সময় ধরে সেট রাখতে সহায়তা করে।

কনসিলার: কনের স্কিন টোন অনুযায়ী কনসিলার দিতে হবে।

কনটুর ও ব্লাস: কনের স্কিনের ধরন অনুযায়ী মেকআপের পর কনটুর ও ব্লাস সেট করতে হবে।

ফাউন্ডেশন ও ফেস পাউডার: কনের স্কিনের রং অনুযায়ী নির্দিষ্ট কালারের ফাউন্ডেশন ও ফেস পাউডার কিনতে হবে।

লিপস্টিক ও লিপ লাইনার: বিয়ের ড্রেস ও শাড়ির সাথে মিলিয়ে লিপস্টিক ও লিপ লাইনার কিনতে হবে।

নেইল পেইনট: বিয়ের আউটফিটের সাথে মিলিয়ে নেইল পলিস বা নেইল পেইনট নির্বাচন করতে হবে।

আইলাইনার মাস্কারা ও কাজল: যদিও মার্কেটে বিভিন্ন কালারের আইলাইনার, মাস্কারা ও কাজল কিনতে পাওয়া যায় তবে কালো রঙটি উত্তম যা চোখের সাজকে ফুটিয়ে তুলে।

আইল্যাস: চোখের পাপড়িগুলো ঘন দেখেতে বেশি সুন্দর দেখায়। তাই আইল্যাস আঠা দিয়ে বা গ্লু দিয়ে চোখের পাপড়ির উপর লাগানো যেতে পারে।

আইব্রু পমেড/পেন্সিল: এমন অনেকে আছেন যাদের আইব্রু হালকা হয়ে থাকে যার ফলে ব্রাইডাল মেকওভার সুন্দরভাবে ফুটে ওঠে না। তাই যে সকল কনেদের আইব্রু পাতলা হয়ে থাকে তারা আইব্রু পমেড/ আইব্রু পেনসিল ব্যবহার করতে পারেন

লিপগ্লস ও লিপ ভেসলিন: যেসকল কনেরা ম্যাট লিপস্টিক একদমই পছন্দ করেন না তাদের জন্য লিপগ্লস বেস্ট অপশন।ঠোঁটের শুষ্কতা দূর করতে লিপ ভেসলিন বিরাট ভূমিকা রাখে।

বডি স্প্রে ও পারফিউম: সাজগোজ করে তৈরি হওয়ার পর দেহের সুগন্ধি বৃদ্ধিতে পারফিউম ও বডি স্প্রে বিকল্প নেই।

কনের বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকায় গহনা ও অলংকার

কনের সাজকে পরিপূর্ণতা প্রদান করতে গহনা ও অলংকারের বিকল্প নেই। অনেকে সিটি গোল্ডের গহনা পছন্দ করে থাকেন, অনেকে স্বর্ণ ও রুপার ও ডায়মন্ডের গহনা পছন্দ করে থাকেন।

যে যার সামর্থ্য অনুযায়ী গহনা ও অলংকার ক্রয় করতে পারেন। বিয়ের গহনা ও অলংকার গুলো শাড়ি লেহেঙ্গা অথবা ব্রাইডাল গাউনের সাথে ম্যাচিং করে কিনতে হবে।

কারণ যে অলংকার বা গহনাটি শাড়ি ও লেহেঙ্গার সাথে ফুটিয়ে তুলবে সেটি ব্রাইডাল গাউনের সাথে নাও ফুটিয়ে তুলতে পারে। তাই বিয়ের গহনা ও অলংকার ক্রয় করার পূর্বে হাতে বেশি সময় রাখতে হবে যেন বিয়ের পরেও গহনা ও অলংকারটি ব্যবহার অযোগ্য না হয়ে ওঠে।

কনের গহনা ও অলংকারের জিনিসপত্রের মধ্যে রয়েছে-

  1. হাতের চুড়ি
  2. আঙ্গুলের আংটি
  3. নাকের নথ ও নাকফুল
  4. কানের রিং
  5. কণ্ঠহার বা নেইকলেস
  6. হাতের ব্যাসলেট বা বালা
  7. পায়ের নুপুর
  8. টিকলী
  9. নোলক
  10. বিছা
  11. শীতাহার

 

পরিধেয় জিনিস

  1. থ্রি পিছ, টু পিছ, ওড়না
  2. লেডিস ঘড়ি
  3. হলুদের শাড়ি ১টি, বিয়ের শাড়ি ১টি
  4. রিসিপশনের জন্য লেহেঙ্গা অথবা ব্রাইডাল গাউন  ১টি
  5. বেনারসি শাড়ি, জামদানি শাড়ি
  6. টাংগাইল শাড়ি,নরমাল শাড়ি
  7. কাতান শাড়ি, সিল্ক শাড়ি ইত্যাদি।
  8. ব্লাউজ
  9. পেটিগোট
  10. নাইট ড্রেস

 

ধর্মীয় প্রোডাক্টস 

  1. জায়নামাজ (নামাজ পড়ার জন্য)
  2. তাসবীহ
  3. কুরআন শরীফ
  4. বোরকা ও হিজাব/স্কার্ফ

বি.দ্র.(যার যার নিজস্ব ধর্ম অনুযায়ী সে তার ধর্মীয় প্রোডাক্টগুলো কিনে নিতে পারেন)

 

বরের বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা | বরের বিয়ের বাজার লিস্ট

 

  1. শেরওয়ানি
  2. পাগড়ি
  3. পাঞ্জাবি
  4. পাঞ্জাবির সাথে মেচিং করে ওড়না
  5. চুস পাইজামা
  6. লুঙ্গি
  7. ব্লেজার
  8. টাই
  9. গেঞ্জি
  10. ট্রাউজার্স
  11. শার্ট
  12. প্যান্ট
  13. মোজা
  14. রুমাল
  15. বেল্ট
  16. জুতো
  17. স্যান্ডেল

 

আমরা অনেকেই মনে করে থাকি মেয়েদের জন্যই শুধু বডি প্রোডাক্ট বরাদ্দ। ব্যাপারটি আসলে তা নয়। কনের সাথে বরেরও বডিকেয়ার খুবই প্রয়োজন। তাহলে জেনে নেয়া যাক বরের জন্য কি কি গুরুত্বপূর্ণ বডি কেয়ার পণ্যের দরকার-

 

  1. শ্যাম্পু
  2. সাবান
  3. বডি স্প্রে
  4. পারফিউম
  5. চুলের জেল
  6. শেভিং কিট

 

অন্যান্য এক্সট্রা কসমেটিক এর মধ্যে রয়েছে

 

  1. আয়না ও চিরুনী
  2. কপালের টিপ, টিকলি ও সিঁদুর
  3. চুলের খোঁপা এবং ক্লিপ
  4. গ্লিটার মেহেদি ও টিউব মেহেদি
  5. রাখি(গোল্ডেন অ্যান্ড সিলভার)
  6. আর্টিফিশিয়াল ফুল চুলের জন্য
  7. সেফটিপিন (গোল্ডেন অ্যান্ড সিলভার)
  8. জুতা : বিয়েতে পড়ার জন্য
  9. স্যান্ডেল: ঘরে পড়ার জন্য
  10. অলংকার বক্স
  11. ডালা
  12. পার্টি ব্যাগ
  13. রেগুলার ইউজের ব্যাগ
  14. ট্রলি ব্যাগ অথবা লাগেজ
  15. পায়ের আলতা
  16. ভ্যানিটি ব্যাগ ও টিস্যু পেপার
  17. মেকআপ রিমুভার
  18. বডি মিস্ট,ক্যান্ডেল,আন্ডার গার্মেন্টস
  19. বর ও কনেপক্ষের আত্মীয় স্বজনদের জন্য কিছু পোশাক উপহার
  20. অন্যান্য কিছু প্রোডাক্ট যা বর ও কনে উভয় পক্ষের জন্যই একান্ত জরুরী-
  21. (বিয়ের ডায়েরি)
  22. (বিয়ের কার্ড)
  23. (বিয়ের আংটি)

 

উপরে উল্লেখিত বিয়ের কসমেটিকস এর লিস্টে  আমরা নির্দিষ্ট কোনো ব্র্যান্ডের কথা ও বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের পরিমাণ  উল্লেখ করিনি কারণ একেকজন একএক ধরনের ব্যান্ডের কসমেটিকস পছন্দ করে থাকেন এবং বিভিন্ন মানুষের সামর্থ্য বিভিন্ন ধরনের হয়ে থাকে তাই যে যার সামর্থ অনুযায়ী কিনবেন।

বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা নির্বাচনের সময় সকল ব্যক্তির আয় ও সামর্থের কথাটিও মাথায় রাখা অত্যন্ত জরুরী। সকল বর কনের পক্ষের ক্ষেত্রে নামিদামি ব্র্যান্ডের জিনিস কিনা সম্ভব হয় না। সুতরাং যার যার সামর্থ অনুযায়ী তার পছন্দমত ব্র্যান্ডের জিনিস কিনতে হবে যাতে অর্থের অপচয় না হয়।

সুতরাং বলা যায়, বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা নির্বাচনের পূর্বে আপনাদের পছন্দের ব্র্যান্ড ও সামর্থ্য অনুযায়ী প্রতিটি পণ্যের তালিকা তৈরি করলে উপকৃত হতে পারেন।

পরিশেষে

এইসব জিনিস ছাড়া আরও অনেক বিয়ের জিনিসপত্র আপনার দরকার হতে পারে। তাই, নিজের দরকার অনুযায়ী তালিকা তৈরি করে নিলে বিয়ের জিনিসপত্র কিনতে সুবিধা হবে। উপরে উল্লেখিত সবগুলো পণ্যইযে বিয়ের সময় প্রয়োজন বিষয়টি এমন নয়। আপনার প্রয়োজন ও চাহিদার উপর নির্ভর করবে বিয়ের জিনিসপত্র এর কি লাগবে আর কি লাগবে না।

শেষ কথা:
আশা করি আপনাদের এই আর্টিকেলটি পছন্দ হয়েছে। আমি সর্বদা চেষ্টা করি যেন আপনারা সঠিক তথ্যটি খুজে পান। যদি আপনাদের এই “কনের বিয়ের কসমেটিকস পণ্যের তালিকা | বরের বিয়ের বাজার লিস্ট” আর্টিকেলটি পছন্দ হয়ে থাকলে, অবশ্যই ৫ স্টার রেটিং দিবেন।

5/5 - (53 votes)