ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি

সালামু আলাইকুম প্রিয় পাঠক আশা করছি আপনারা ভালো আছেন। ভাল আছেন আজ আমরা  আপনাদের সাথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার সম্পর্কে আলোচনা করব।  যারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পরীক্ষা সম্পর্কে আগ্রহী তাদের জন্য আজকের আর্টিকেলটি। ঢাকা  বিশ্ববিদ্যালয়  কার  না স্বপ্ন। দেশের সর্ব প্রাচীন ও গৌরবময় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নাম জিজ্ঞেস করলে সবার আগেই মাথায় চলে আসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম।

প্রতি বছর লাখ লাখ শিক্ষার্থীর মধ্যে মাত্র হাজারখানেক শিক্ষার্থীরা শতবর্ষী বিদ্যাপীঠ, বিদ্যাপীঠে ঢাকা ইউনিভার্সিটি তে পড়াশোনা ইউনিভার্সিটি’তে পড়াশুনার সুযোগ। কারণ পাঁচটি ইউনিটের 7148 বরাদ্দ থাকে। বুঝতে পারছি টিকে থাকতে হলে যুদ্ধের মতো তুমুল সংগ্রাম করতে হবে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন

দশটি অনুষদ এবং 32 টি বিভাগ নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক ইউনিট গঠিত হয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষায় ক’ ইউনিটের বিজ্ঞান বিভাগের পরীক্ষার্থীরা এইচএসসিতে বিজ্ঞান বিভাগের ছিল কেবল তারাই অংশ নিতে পারবে।

 ঢাবি ক ইউনিট মানবন্টন( mcq)

  • পদার্থ বিজ্ঞান: 15 নম্বর
  • রসায়ন বিজ্ঞান: 15 নম্বর
  • জীববিজ্ঞান: 15 নম্বর
  • গণিত: 15 নম্বর
  • বাংলা: 15
  • ইংরেজি: 15 নম্বর

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন: খ ইউনিট

ঢাবি খ  ইউনিট তিনটি অনুষদ ও মোট 34 টি বিভাগ নিয়ে গঠিত। মানবিক বিভাগ থেকে আগত শিক্ষার্থী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার খ-ইউনিট এ পরীক্ষা দিতে পারবেভ সুতরাং বুঝতেই পারছ মানববন্ধন হবে মানবিকের বিষয়গুলো অনুসারে।

ঢাবি  খ ইউনিট মানবন্টন( mcq)

  • বাংলা: 15 নম্বর
  • ইংরেজি: 15 নম্বর
  • সাধারণ জ্ঞান: 15 নম্বর

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন:গ ইউনিট

শুধুমাত্র বাণিজ্য বিভাগের শিক্ষার্থীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় গ ইউনিটে অংশ নিতে পারবে। সুতরাং বুঝতেই পারছ মানববন্ধন হবে বাণিজ্য বিভাগের বিষয়গুলো অনুসারে।

ঢাবি গ ইউনিট মানবন্টন( mcq)

  • বাংলা: 12 নম্বর
  • ইংরেজি: 12 নম্বর
  • হিসাববিজ্ঞান: 12 নম্বর
  • ব্যবসায় নীতি ও প্রয়োগ: 12 নম্বর
  • মার্কেটিং/  ফিনান্স এন্ড ব্যাংকিং: 12 নম্বর

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন ঘ ইউনিট( mcq)

ঢাবি ঘ ইউনিট হল সম্মনিত ইউনিট অর্থাৎ  এই ইউনিটে মানবিক ব্যবসায় শিক্ষা ও বিজ্ঞান বিভাগের পরীক্ষার আবেদন করতে পারবে।

  • বাংলা: 15 নম্বর
  • ইংরেজি: 15 নম্বর
  • সাধারণ জ্ঞান: 30 নম্বর

 

এমসিকিউ পরীক্ষায় প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য 0.25 নম্বর কাটা হবে এবং তার বিষয়ভিত্তিক সমন্বয় করা হবে। একজন প্রার্থীর বিষয়ে প্রশ্নের উত্তর দিলে তার উপর নির্ভর করে কোন বিভাগ/ ইনস্টিটিউটে ভর্তি হতে পারবে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা এর সময় বন্টন

সময় বন্টনের ক্ষেত্রে আগের মতই এক ঘন্টা ত্রিশ মিনিট রাখা হয়েছে। ঢাকা ইউনিভার্সিটি এর ক, খ, গ,  এবং ঘ ইউনিটের জন্য এমসিকিউ পরীক্ষার সময়কাল হবে 45 মিনিট এবং লিখিত পরীক্ষার সময় 45 মিনিট। ঢাকা ইউনিভার্সিটি চ ইউনিট, এমসিকিউ পরীক্ষার জন্য 30 মিনিট এবং লিখিত পরীক্ষার জন্য 45 মিনিট সময় নির্ধারণ করা হয়েছে।

লিখিত  অংশে প্রশ্ন থাকবে সকল সংক্ষিপ্ত উত্তর এর জন্য। বহুনির্বাচনি এবং লিখিত পরীক্ষার জন্য আলাদা আলাদা উত্তর পত্র সরবরাহ করা হবে। একটি পরীক্ষা শেষ হলে, উত্তর পত্র সংগ্রহ করে পরবর্তী পরীক্ষার জন্য প্রশ্ন উত্তর পত্র দেয়া হবে।

ঢাকাসহ বিভাগীয় শহরে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ভর্তিপরীক্ষা কেন্দ্রী মোবাইল ফোন, ক্যালকুলেটর, যেকোনো ধরনের ইলেকট্রিক ডিভাইস সম্বলিত ঘড়ি ও কলম ব্যবহার করা সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।

 ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তির যোগ্যতা

2022 সাল এবং এরপর এইচএসসি পরীক্ষার্থীরা, তোমরা যারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা দিবে, এই দিকনির্দেশনা তাদের জন্যই।

প্রার্থীকে অবশ্যই 2017 থেকে 2020 সালের এসএসসি বা সমমানের পরীক্ষায় পাশ করতে হবে। শুধুমাত্র 2022 সালের উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ আবেদন করতে পারবে।  ঢাকা ইউনিভার্সিটি এর বিভিন্ন ইউনিট  এর ভর্তি  পরীক্ষায় আবেদনের জন্য ভিন্ন ভিন্ন যোগ্যতার প্রয়োজন। নিচে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ইউনিট সমূহ এর আবেদন যোগ্যতা দেওয়া হল:-

ঢাবি ক ইউনিট( বিজ্ঞান বিভাগ)

বিজ্ঞান ও কৃষি বিজ্ঞান শাখায় উচ্চমাধ্যমিক এবং মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের বিভিন্ন শাখায় আলিম ও আই জি সি এস ই/ ও লেভেল এবং আই এ এল/ ডিসি এ লেভেল পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায়( চতুর্থ বিষয় সহ) প্রাপ্ত জিপিএ এর যোগফল ন্যূনতম 8.00 আছে তারা ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবে। তবে কোনো পরীক্ষার্থী 3.5 এর কম জিপিএ থাকলে আবেদন করতে পারবে না।

 ঢাবি খ ইউনিট( মানবিক বিভাগ)

মানবিক শাখায় উচ্চমাধ্যমিক এবং মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের উত্তীর্ণ প্রার্থীদের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায়( চতুর্থ বিষয় সহ) প্রাপ্ত জিপিএ এর যোগফল ন্যূনতম 7.50 আছে তারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি জন্য আবেদন করতে পারবে। তবে কোনো পরীক্ষাতে 3.0 এর কম জিপিএ থাকলে আবেদন করতে পারবে না।

 ঢাবি গ ইউনিট( ব্যবসায়  শিক্ষা বিভাগ)

ব্যবসায় শিক্ষা শাখায় উচ্চমাধ্যমিক, ডিপ্লোমা- ইন- বিজনেস স্টাডিজ, ডিপ্লোমা ইন কমার্স ও বিজনেস ম্যানেজমেন্ট পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায়( চতুর্থ বিষয় সহ) প্রাপ্ত জিপিএ দয়ের যোগফল ন্যূনতম 7.50 আছে তারা ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবে। তবে কোনো পরীক্ষাতে 3.00 এর কম জিপিএ থাকলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি তে আবেদন করতে পারবে না।

উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের ডিপ্লোমা ইন বিজনেস স্টাডি, দিপ্লোমা ইন কমার্স ও বিজনেস ম্যানেজমেন্ট শাখা থেকে আগত প্রার্থীদের একাউন্টিং বিষয়টি অবশ্যই থাকতে হবে এবং উক্ত বিষয়ে ন্যূনতম  বি গ্রেড( গ্রেট- পয়েন্ট 3.0) হতে হবে।

ঢাবি ঘ ইউনিট(সমন্বিত বিভাগ)

মানবিক শাখার মাধ্যমিকওউচ্চমাধ্যমিক এবং মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের মানবিক শাখায় আলিম পরীক্ষায় উত্তীর্ণ যে সকল  পরীক্ষার্থীর মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষা( চতুর্থ বিষয়) প্রাপ্ত জিপিএ যোগফল ন্যূনতম 7.50( মাধ্যমিক/ সমমান এবংউচ্চমাধ্যমিক/ সমমান পরীক্ষায় আলাদাভাবে ন্যূনতম 3.00 থাকতে হবেই) আছে তারা ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবে।

বিজ্ঞান, কৃষিবিজ্ঞান, গার্হস্থ্য, অর্থনীতি এবং মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের বিজ্ঞান শাখা থেকে আগত যে সকল প্রার্থী মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায়( চতুর্থ বিষয় সহ) প্রাপ্ত জিপিএ  দয়ের যোগফল ন্যূনতম 8.00(  মাধ্যমিক/ সমমান এবং উচ্চমাধ্যমিক/ সমমান পরীক্ষায় আলাদাভাবে ন্যূনতম 3.50 থাকতে হবে) তারা ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারবে।

ব্যবসায় শিক্ষা শাখায় উচ্চমাধ্যমিক, ডিপ্লোমা বিজনেস স্টাডি, দিপ্লোমা ইন কমার্স বিজনেস ম্যানেজমেন্ট শাখা থেকে আগত প্রার্থীদের মধ্যে যাদের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায়( চতুর্থ বিষয় সহ) প্রাপ্ত জিপিএ এর যোগফল ন্যূনতম 7.50( মাধ্যমিক/ সমান এবং উচ্চমাধ্যমিক/ সমমান পরীক্ষায় আলাদাভাবে ন্যূনতম 3.5 থাকতে হবে) আছে কেবল তারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি জন্য আবেদন করতে পারবে। উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায় কোন বিষয়ে বি গ্রেড( গ্রেড পয়েন্ট 3.00) এর নিচে আবেদন গ্রহণযোগ্য হবে না ।

ঢাবি চ ইউনিট( চারুকলা বিভাগ)

উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষার যে কোন শাখায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বা সমমানের পরীক্ষায়( চতুর্থ বিষয় সহ) প্রাপ্ত জিপিএ এর যোগফল ন্যূনতম 6.50 আছে তারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি  এর জন্য আবেদন করতে পারবে। তবে কোনো পরীক্ষাতেই 3.00 এর কম জিপিএ থাকলে আবেদন করতে পারবে না।

ঢাবি ভর্তির আবেদন ফি

2018 থেকে 19 শিক্ষাবর্ষ পর্যন্ত ঢাবি আবেদন ফি 350 টাকা। 2019 থেকে 20 শিক্ষাবর্ষে  ঢাবি আবেদন ফি100 টাকা বাড়িয়ে করা হয়েছে 450 টাকা। এরপর 2020 থেকে 21 শিক্ষাবর্ষে আরও 200 টাকা বাড়িয়ে ঢাবির আবেদন ফি করা হয়েছে 650 টাকা। এবার 2021 থেকে 22 শিক্ষাবর্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি ফরমের মূল্য আরো 350 টাকা বাড়িয়ে 1000 টাকা করা হয়েছে।

পরিশেষে বলা যায় যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা সম্পর্কে কিছু জানতে হলে অবশ্যই আমাদের আর্টিকেলটি প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত পড়বেন। আশা করছি আপনারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা সম্পর্কে কিছুটা হলেও ধারণা পেয়ে থাকবেন। এইচএসসির পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার জন্য একটা সময় পাওয়া যায় না তাই এখন থেকেই একটু একটু করে নিজেকে তোমার কাঙ্খিত ইউনিটের জন্য প্রস্তুত করো। মনে রাখবে, কঠোর অনুশীলন, ও অধ্যবসায় ও পরিশ্রম মাধ্যমে যেকোনো  কঠিন বাধা অতিক্রম করা সম্ভব।

5/5 - (19 votes)

By Mithu Khan

I am a blogger and educator with a passion for sharing knowledge and insights with others. I am currently studying for my honors degree in mathematics at Govt. Edward College, Pabna.