বচন কাকে বলে?

বচন একটি পারিভাষিক শব্দ। এর অর্থ সংখ্যার ধারণা। ব্যাকরণে বিশেষ্য বা সর্বনামের সংখ্যাগত ধারণা প্রকাশের উপায়কে বচন বলে।

বচনের প্রকারভেদ / শ্রেণীবিভাগ

বাংলা ভাষায় বচন ২ প্রকার। যথাঃ-

  • একবচন
  • বহুবচন

একবচনঃ- যে শব্দ দ্বারা কোন প্রাণী, বস্তু বা ব্যাক্তির একমাত্র সংখ্যার ধারণা হয়, তাকে একবচন বলে। যেমন – সে আসলো। ছেলেটি স্কুলে যায় নি। ইত্যাদি।

কেবলমাত্র বিশেষ্য ও সর্বনাম শব্দের বচনভেদ হয়। কোন কোন সময় টা, টি,খানা, খানি ইত্যাদি যোগ করে বিশেষ্যের একবচন নির্দেশ করা হয়। যেমন – কলমটা, গরুটা ইত্যাদি।

বহুবচনঃ- যে শব্দ দ্বারা কোন প্রাণী, বস্তু বা ব্যাক্তির একের অধিক বা বহু সংখ্যার ধারণা হয়, তাকে বহুবচন বলে। যেমন – ছেলেরা ফুটবল খেলতেছে। মেয়েরা এখনো আসে নি। ইত্যাদি।

বাংলায় বহুবচন প্রকাশের জন্য রা, এরা, গুলা, গুলি,গুলো, দিগ,দের প্রভৃতি বিভক্তি যুক্ত হয় এবং সব, সকল, সমুদয়, কূল,বৃন্দ, বর্গ, নিচয়, রাজি, রাশি,পাল,দাম,নিকর,মালা, আবলি ইত্যাদি সমষ্টিবোধক শব্দ ব্যবহৃত হয়।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x