দাম ব্যবস্থা হলো এমন একটি অর্থনৈতিক পদ্ধতি যা দ্বারা ধনতান্ত্রিক অর্থব্যবস্থায় সমাজের উৎপাদন, বণ্টন, ভোগ, বিনিয়োগ তথা সার্বিক অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড পরিচালিত হয়।

ধনতান্ত্রিক অর্থব্যবস্থায় প্রত্যেক ব্যক্তি স্বাধীনভাবে অর্থনৈতিক কার্যাবলি সম্পাদন করে থাকে। কিন্তু বিভিন্ন ব্যক্তির ইচ্ছা অনুযায়ী অর্থনৈতিক কার্যাবলি পরিচালিত হলেও ধনতান্ত্রিক অর্থব্যবস্থাকে ‘শৃঙ্খলাবিহীন’ বলা যায় না। কারণ, ধনতান্ত্রিক অর্থব্যবস্থায় বিভিন্ন ব্যক্তির স্বাধীন আচরণ ও কর্মকাণ্ড এক ‘অদৃশ্য হস্ত’ (Invisible hand) দ্বারা পরিচালিত ও নিয়ন্ত্রিত হয়ে থাকে।

অর্থনীতিবিদ এ্যাডাম স্মিথ এর ভাষায়, “ধনতান্ত্রিক সমাজব্যবস্থায় যে ‘অদৃশ্য হস্ত’ বিভিন্ন ব্যক্তির কর্মপ্রচেষ্টাকে প্রভাবিত ও নিয়ন্ত্রিত করে তাকে ‘দাম-প্রক্রিয়া’ বলা হয়।” এই প্রক্রিয়ায় বাজারে বিভিন্ন দ্রব্যসামগ্রীর দাম, উহার চাহিদা ও যোগানের ঘাত-প্রতিঘাতে আপনা-আপনি নির্ধারিত হয় এবং দ্রব্যের দামের কম-বেশির ফলে উৎপাদন, বণ্টন, ভোগ ও বিনিয়োগ পরিচালিত হয়। ধনতান্ত্রিক অর্থব্যবস্থায় কোন কোন দ্রব্য উৎপন্ন হবে, কতটুকু উৎপন্ন হবে, কিভাবে উৎপন্ন হবে, কে কতটুকু ভোগ করবে ইত্যাদি সব কিছুই স্বয়ংক্রিয় দাম-ব্যবস্থার মাধ্যমে নির্ধারিত হয়। ধনতান্ত্রিক বা পুঁজিবাদী অর্থব্যবস্থায় উৎপাদন, বণ্টন, ভোগ ও বিনিয়োগ নিয়ন্ত্রণকারী- এই অদৃশ্য শক্তিকেই ‘দাম ব্যবস্থা’ (Price system) বলা হয়।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x