শাফাআত আরবি শব্দ। এর অর্থ হচ্ছে সুপারিশ করা, অনুরোধ করা ইত্যাদি। ইসলামি শরিয়তের পরিভাষায় কল্যাণ ও ক্ষমার জন্য আল্লাহ তাআালার নিকট নবি-রাসুল ও নেক বান্দাগণের সুপারিশ করাকে শাফাআত বলে। কিয়ামতের দিন পাপীদের ক্ষমা ও পাপ মার্জনার জন্য এবং পূণ্যবানদের মর্যাদা বৃদ্ধি ও কল্যাণলাভের জন্য শাফাআত করা হবে। এছাড়া কিয়ামতের দিন মহানবি হযরত মুহাম্মদ (স.) তাঁর উম্মতের নাযাতের জন্য শাফাআত করবেন।

শাফাআত দুই প্রকার

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x