b

টেরিডোফাইটা গ্রুপের Filicineae শ্রেণির উদ্ভিদসমূহকে সাধারণভাবে ফার্ণ বলে।

ফার্ণ স্পোরোফাইটা উদ্ভিদ। এদের দেহকে মূল, কাণ্ড ও পাতায় বিভক্ত করা চলে। ফার্ণ উদ্ভিদ অপুষ্পক কিন্তু ভাস্কুলার। ফার্ণ উদ্ভিদের পাতা পক্ষল যৌগিক। ফার্ণের পাতাকে ফ্রন্ড বলে। কচি পাতা কুণ্ডলিত অবস্থায় থাকে। ফার্ণের গ্যামেটোফাইটকে প্রোথ্যালাস বলে। বাংলাদেশে বহু প্রজাতির ফার্ণ আছে। তারমধ্যে বৃক্ষ ফার্ণ অন্যতম। চট্টগ্রাম ও সিলেটের বনে বৃক্ষ ফার্ণ পাওয়া যায়। সুন্দরবনে টাইগার ফার্ণ পাওয়া যায়। অনেক ফার্ণ শাক হিসেবে খাওয়া যায়।

প্রোটোপ্লাজমকে জীবনের ভৌত ভিত্তি বলা হয় কেন?

প্রোটোপ্লাজম কোষের তথা দেহের সকল মৌলিক, জৈবিক কার্যাদি সম্পন্ন করে থাকে। যেমন- খাদ্য তৈরি, খাদ্য পরিপাক, আত্তীকরণ, শ্বসন, বৃদ্ধি, জনন ইত্যাদি। প্রোটোপ্লাজমের জৈবিক বৈশিষ্ট্যই জীবের বৈশিষ্ট্য। কোনো গতিশীল কোষের সমস্ত কাজ প্রোটোপ্লাজম সম্পন্ন করে। এ জন্যই, প্রোটোপ্লাজমকে জীবনের ভৌত ভিত্তি হিসেবে চিহ্নিত করা হয়।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x