b

HTML পেজে ইমেজ যুক্ত করার জন্য <img> ট্যাগ ব্যবহৃত হয়। <img> ট্যাগ এর দু’টি এট্রিবিউট হলো– src এবং alt। <img> ট্যাগটি এম্পটি অর্থাৎ এটি কেবল এট্রিবিউট বহন করে এবং এর কোনো ক্লোজিং ট্যাগ নেই। পেজে কোনো ইমেজ প্রদর্শন করতে চাইলে <img> ট্যাগ এর সাথে src অ্যাট্রিবিউট ব্যবহার করতে হবে। src এর অর্থ হলো Source। পেজে যে ইমেজটি প্রদার্শন করা হবে তার URL হলো src অ্যাট্রিবিউটটির ভ্যালু। কোনো ইমেজকে নির্ধারণ করার জন্য প্রয়োজনীয় সিনট্যাক্সটি হলো :

<img src=”url”/>

ইমেজটি কোথায় সংরক্ষিত আছে URL সেটি চিহ্নিত করে। ধরা যাক, “flower.gif” নামে একটি ইমেজ www.example.com নামের ওয়েবসাইটের “images” নামের একটি ডিরেক্টরিতে রয়েছে। তাহলে তার URL হবে http://www.example.com/images/flower.gif। ডকুমেন্টের যেখানেই ইমেজ ট্যাগটি পাবে সেখানেই ব্রাউজার ওই ইমেজটি বসিয়ে দেবে। যদি দু’টি প্যারাগ্রাফের মধ্যে একটি ইমেজ ট্যাগ থাকে তাহলে ব্রাউজারটি সবার আগে প্রথম প্যারাগ্রাফ, তারপর ইমেজ এবং সবশেষে দ্বিতীয় প্যারাগ্রাফটি প্রদর্শন করবে।

Alt অ্যাট্রিবিউট : Alt অ্যাট্রিবিউটটি কোনো ইমেজের জন্য একটি ‘অল্টারনেট টেক্সট’ নির্ধারণে ব্যবহৃত হয়। Alt অ্যাট্রিবিউটের ভ্যালু হলো একটি অথর-ডিফাইনড টেক্সট। যেমন : <img src=”flower.gif” alt=”Big flower”/>। ব্রাউজার যদি কোনো কারণে ইমেজসমূহ লোড করতে ব্যর্থ হয় তবে Alt অ্যাট্রিবিউটটি পাঠক কি মিস করছেন সেটি তাকে বলে দেয়। এরপর ব্রাউজারটি ইমেজের পরিবর্তে অলটারনেট টেক্সট প্রদর্শন করবে। HTML ফাইলে বেশি ইমেজ থাকলে পেজটি লোড হতে প্রচুর সময় নিতে পারে। তাই পেজে কম ইমেজ ব্যবহার করাই উত্তম।

ইমেজের সাইজ নির্ধারণ করা : পেজে ইমেজ যুক্ত করার সময় সোর্স অ্যাট্রিবিউটের সাথে ইমেজের উচ্চতা (height) এবং প্রশস্ততা (width) কত পিক্সেল হবে তা নির্ধারণ করে দেয়া যায়। যেমন–

<img src=”ocean.jpg” width=”415″ height=”332″>

এখানে ocean.jpg নামের ইমেজটি পেজে 415 × 332 পিক্সেলস আকৃতিতে প্রদর্শিত হবে।

ইমেজ ট্যাগসমূহ :
<img> : ইমেজকে নির্ধারণ করে।
<map> : ইমেজ ম্যাপকে নির্ধারণ করে।
<area> : কোনো ইমেজ ম্যাপের অভ্যন্তরে ক্লিকযোগ্য এলাকা নির্ধারণ করে।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x