পড়াশোনা
1 min read

সপ্তম শ্রেণির বিজ্ঞান ৩য় অধ্যায় প্রশ্ন ও উত্তর

প্রিয় শিক্ষার্থী বন্ধুরা, সৃজনশীল প্রশ্নপদ্ধতিতে উদ্দীপকের বিষয়বস্তু ছাড়াও সংশ্লিষ্ট অধ্যায়ের যেকোনো অংশ থেকে জ্ঞানমূলক এবং অনুধাবনমূলক প্রশ্ন আসতে পারে। তাই এ অধ্যায়ের সর্বাধিক কমনের উপযোগী কিছু গুরুত্বপূর্ণ জ্ঞানমূলক এবং অনুধাবনমূলক প্রশ্ন ও উত্তর প্রদান করা হলো।

প্রশ্ন-১. কোন উদ্ভিদের মালাকৃতির মূল থাকে?

উত্তর : করলা।

প্রশ্ন-২. আকৃতিগত দিক থেকে মূল কত প্রকার?

উত্তর : ৪ প্রকার।

প্রশ্ন-৩. গাজরাকৃতি মূলের কাজ কি?

উত্তর : খাদ্য সঞ্চয় করা।

প্রশ্ন-৪. রূপান্তরিত মূল কত ধরনের হয়ে থাকে?

উত্তর : ৪ ধরনের।

প্রশ্ন-৫. অস্থানিক মূল কয় ধরনের কাজ করার জন্য রূপান্তরিত হয়?

উত্তর : ৩ ধরনের।

প্রশ্ন-৬. পরাশ্রয়ী বায়বীয় মূলের একটি উদাহরণ দাও।

উত্তর : পরাশ্রয়ী বায়বীয় মূলের একটি উদাহরণ হলো রাস্না।

প্রশ্ন-৭. পাতা কি?

উত্তরঃ পাতা হলো শাখার পর্ব থেকে উৎপন্ন চ্যাপ্টা প্রসারিত সবুজ অঙ্গ।

প্রশ্ন-৮. টিউবার বা স্ফীত কন্দ কাকে বলে?

উত্তর : যে ভূ-নিম্নস্থ রূপান্তরিত কাণ্ডে পর্ব, পর্বমধ্য, শঙ্কপত্র ও কাঙ্ক্ষিত মুকুল থাকে তাকে টিউবার বা স্ফীত কন্দ বলে।

প্রশ্ন-৯. আরোহী মূল কোথা থেকে উৎপন্ন হয়?

উত্তর : আরোহী মূল দুর্বল কাণ্ডযুক্ত উদ্ভিদের পর্ব হতে উৎপন্ন হয়।

প্রশ্ন-১০. নডুলুজ মূল কী?

উত্তর : যেসব মূলের অগ্রভাগ খাদ্য সংগ্রহ করে স্ফীত হয়, সেগুলোই নডুলুজ মূল।

প্রশ্ন-১১. অস্থানিক মূল কাকে বলে?

উত্তর : যে মূল বিশেষ বিশেষ কার্য সাধনের জন্য পরিবর্তিত বা রূপান্তরিত হয় তাকে অস্থানিক মূল বলে।

প্রশ্ন-১২. রাইজোম কী?

উত্তর : যেসব কাণ্ড মাটির নিচে খাদ্য সঞ্চয় করে স্ফীত হয়ে অবস্থান করে এবং এদের সুস্পষ্ট পর্ব ও পর্বমধ্য থাকে তাই রাইজোম।

প্রশ্ন-১৩. রসালো শল্কপত্র কী?

উত্তর : কখনো ভূনিম্নস্থ কাণ্ডের পাতা পাতলা আঁশের মতো আকার ধারণ করে। এ ধরনের পাতাই হলো রসালো শল্কপত্র।

প্রশ্ন-১৪. আকর্ষী কাকে বলে?

উত্তর : উদ্ভিদের সম্পূর্ণ পাতা, পাতার শীর্ষভাগ অথবা পত্রক অনেক সময় প্যাঁচানো স্প্রিংয়ের মতো রূপ ধারণ করে তাকে আকর্ষী বলে।

যান্ত্রিক ভারসাম্য রক্ষার্থে অস্থানিক মূলের রূপান্তরের দুটি উদাহরণ দাও।

উত্তর : যান্ত্রিক ভারসাম্য রক্ষার্থে রূপান্তরিত অস্থানিক দুটি মূলের উদাহরণ হলো—

i. স্তম্ভমূল- বৃহদাকার উদ্ভিদের শাখা-প্রশাখার ভার বহনের জন্য রূপান্তরিত হয়। যেমন- বটের স্তম্ভমূল।

ii. আরোহী মূল- লতানো গাছকে আরোহণে সহায়তা করে। যেমন- পানের আরোহী মূল।

শ্বাসমূলের গুরুত্ব লিখ।

উত্তর : শ্বাসমূল এক ধরনের রূপান্তরিত মূল। এর অপর নাম নিউমাটোফোর। সমুদ্র উপকূলে লবণাক্ত ও কর্দমাক্ত মাটিতে উদ্ভিদের প্রধান মূল হতে শাখা মূল হিসেবে এটি মাটির ওপরে খাড়াভাবে উঠে আসে। এসব মূলে ছোট ছোট ছিদ্র থাকে। এসব ছিদ্রগুলো উদ্ভিদের শ্বাসকার্যে সহযোগিতা করে।

ফাইলোক্ল্যাড বা পর্ণ কাণ্ডের দুটি বৈশিষ্ট্য লেখ।

উত্তর : ফাইলোক্ল্যাড বা পর্ণ কাণ্ডের দুটি বৈশিষ্ট্য হলো–

i. পর্ণ কাণ্ড পাতার মতো চ্যাপ্টা ও সবুজ, যার ফলে এরা নিজের খাদ্য নিজেরা তৈরি করতে পারে।

ii. পর্ণ কাণ্ডের পাতাগুলো কাঁটায় পরিণত হয়ে উদ্ভিদের আত্মরক্ষার কাজ করে।

গুড়িকন্দের বৈশিষ্ট্য উল্লেখ কর।

উত্তর : গুড়িকন্দের বৈশিষ্ট্য নিচে উল্লেখ করা হলো–

i. গুড়িকন্দের কাণ্ড বেশ বড় এবং আকৃতিতে প্রায় গোলাকার।

ii. এদের সুস্পষ্ট পর্ব ও পর্বমধ্য থাকে।

iii. শঙ্কপত্রের কক্ষে উৎপন্ন পার্শ্ব বা কাক্ষিক মুকুলগুলি বড় হয় এবং শিশু গুড়িকন্দের সৃষ্টি করে।

পাথরকুচি পাতার মাধ্যমে কিভাবে প্রজনন ঘটে?

উত্তর : পাথরকুচি পাতা এক ধরনের রূপান্তরিত পাতা। পাতার মাধ্যমে এগুলো প্রজনন সমাধা করে।পাথরকুচি উদ্ভিদে পাতার কিনারা থেকে কুঁড়ি গজায়। ধীরে ধীরে এসব কুঁড়ি থেকে নিচের দিকে গুচ্ছমূল তৈরি হয়। কোনো একসময় গুচ্ছমূল মুক্ত হয়ে স্বাধীন উদ্ভিদের জন্ম দেয়। এভাবেই পাথরকুচি পাতার মাধ্যমে প্রজনন ঘটে।

অস্থানিক মূলের রূপান্তর ঘটার কারণ লেখো।

উত্তর : মূলের স্বাভাবিক শারীরবৃত্তীয় কাজ ছাড়াও খাদ্য সঞ্চয়ের জন্য, যান্ত্রিক ভারসাম্য রক্ষার জন্য এবং শারীরবৃত্তীয় কাজ সমাধান করার জন্য অস্থানিক মূলের রূপান্তর ঘটে থাকে।

Rate this post